চাঁদপুর, রোববার ১৯ মে ২০১৯, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৩ রমজান ১৪৪০
redcricent
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫০-সূরা কাফ্

৪৫ আয়াত, ৩ রুকু, মক্কী

পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।

২৮। আল্লাহ বলিবেন, ‘আমার সম্মুখে বাগ্-বিত-া করিও না; তোমাদিগকে আমি তো পূর্বেই সতর্ক করিয়াছি’।

২৯। ‘আমার কথার রদবদল হয় না এবং আমি আমার বান্দাদের প্রতি কোনো অবিচার করি না।’

৩০। সেই দিন আমি জাহান্নামকে জিজ্ঞাসা করিব, ‘তুমি কি পূর্ণ হইয়া গিয়াছ? জাহান্নাম বলিবে, ‘আরও আছে কি?’


assets/data_files/web

খ্যাতিমান লোকের ভালোবাসা অনেক ক্ষেত্রে গোপন থাকে। -বেন জনসন।


 


 


যার দ্বারা মানবতা উপকৃত হয়, মানুষের মধ্যে তিনি উত্তম পুরুষ।


 


 


 


ফটো গ্যালারি
আমার সাংবাদিকতা ও দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠ
রোটাঃ রেদওয়ান আহমেদ জাকির
১৯ মে, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


আমার সাংবাদিকতা শুরু ২০০৩ সালে। মতলব দক্ষিণ উপজেলার একটি সাপ্তাহিক পত্রিকা দিবাকণ্ঠে সংবাদ লিখার মাধ্যমে। তারপর দৈনিক চাঁদপুর দিগন্ত পত্রিকায় ৩ বছর মতলব দক্ষিণ উপজেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করার সুবাদে চাঁদপুরের পত্রিকায় সংবাদ প্রেরণ শুরু হয়। প্রথমে সংবাদগুলো হাতে লিখে সিএনজি স্কুটারের মাধ্যমে চাঁদপুরে প্রেরণ করতাম। মুঠোফোনের মাধ্যমে যোগাযোগ করলে পত্রিকা অফিস তা সংগ্রহ করতো। পরদিন পত্রিকায় যখন নিজের লেখা দেখতাম মনটা আনন্দে ভরে উঠতো।



২০১১ সালে চাঁদপুরের সর্বপ্রথম দৈনিক পত্রিকা দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠের ই-মেইলের মাধ্যমে পত্রিকার সম্পাদক বরাবর প্রথম জীবন বৃত্তান্ত পেশ করলাম। চাঁদপুর কণ্ঠ অফিসে আমাকে ডাকা হলো। সাংবাদিকতা কেনো করবো, তার পাশাপাশি কোনো কাজে জড়িত আছি কি না, এসব বিষয়ে বিভিন্ন প্রশ্ন করলেন পত্রিকার প্রধান সম্পাদক রোটাঃ কাজী শাহাদাত। অনেক ভয়ে ছিলাম। তিনি অভয় দিলেন এবং পত্রিকায় সততা, নিষ্ঠার সাথে কাজ করার পরামর্শ দিলেন। প্রথমে দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠের মতলব প্রতিনিধি হিসেবে কাজ শুরু করি। বিভিন্ন সময়ে ফিচার, সমস্যা, সম্ভাবনা সংক্রান্ত সংবাদ প্রেরণের জন্যে বলা হতো। যথা সম্ভব চেষ্টা করতাম ওই সংক্রান্ত সংবাদ প্রেরণ করার জন্যে।



চাঁদপুর কণ্ঠ পত্রিকায় সংবাদ প্রেরণের পর থেকেই সকালে পত্রিকাটি পড়ে মতলব বাজারে আমার ব্যবসায়িক দোকান 'জাকির কম্পিউটার' খুলতাম। হঠাৎ একদিন ২০১১ সালে পত্রিকার প্রথম পৃষ্ঠায় আমার ছবিসহ মতলব ব্যুরো ইনচার্জের দায়িত্ব দিয়ে সংবাদ প্রকাশিত হয়। আমি তো হতবাক।



চাঁদপুরের সর্বপ্রথম দৈনিক পত্রিকা দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠের মতলব দক্ষিণ উপজেলার দায়িত্ব-এ যেনো আমার কাছে বিশাল পাওয়া। আমার মনে হয়, না চাইতেই অনেক কিছু পেয়ে গেছি। এজন্যে পত্রিকার সম্পাদক রোটাঃ আলহাজ্ব অ্যাডঃ ইকবাল বিন বাশার ও প্রধান সম্পাদক রোটাঃ কাজী শাহাদাতসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা জানাই।



২০১১ সালে তৃতীয় পাঞ্জেরী-চাঁদপুর কণ্ঠ বিতর্ক প্রতিযোগিতায় মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও কলেজের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নিয়ে বিতর্ক প্রতিযোগিতা আয়োজনের দায়িত্ব পেলাম। ওই বছর এ উপজেলার ৮টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও ৪টি কলেজ-মাদ্রাসার অংশগ্রহণে বিতর্ক প্রতিযোগিতা শুরু হয়। পরবর্তী ২০১২ সালে ১০টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ৪টি কলেজ-মাদ্রাসা; ২০১৩ সালে ১০টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও ৬টি কলেজ-মাদ্রাসা; ২০১৪ সালে ২৪টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও মাদ্রাসা এবং ১২টি কলেজ-মাদ্রাসা; ২০১৫ সালে ১৪টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাদ্রাসা ও ৮টি কলেজ-মাদ্রাসা; ২০১৬ সালে ১২টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও মাদ্রাসা এবং ৮টি কলেজ, মাদ্রাসা; ২০১৭ সালে ১৪টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাদ্রাসা ও ৬টি কলেজ-মাদ্রাসা এবং ২০১৮ সালে ১০টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাদ্রাসা এবং ৪টি কলেজ-মাদ্রাসাসহ ২টি প্রাথমিক বিদ্যালয় বিতর্কে অংশগ্রহণ করে।



২০১৮ সালে পত্রিকার অনলাইন সংস্করণের দায়িত্ব দেয়া হয়। অদ্যাবধি অনলাইন সংস্করণের সহ-সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছি।



২০১৯ সালে বিতর্ক প্রতিযোগিতার উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে মতলব দক্ষিণ উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে একাদশ পাঞ্জেরী-চাঁদপুর কণ্ঠ বিতর্ক প্রতিযোগিতা শুরু হয়। এ বছর ৮টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাদ্রাসা ও ৪টি কলেজ এবং মাদ্রাসাসহ ৪টি প্রাথমিক বিদ্যালয় বিতর্কে অংশগ্রহণ করে। বিতর্ক প্রতিযোগিতায় সম্পৃক্ত থাকা এবং বিতর্ক প্রতিযোগিতায় এ উপজেলার শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ করানো অন্যরকম অভিজ্ঞতা। প্রত্যেক কলেজ, মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাদ্রাসা ও প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গিয়ে শিক্ষকদের সাথে কথা বলা, শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা হয়তো একটু কষ্টের। কিন্তু প্রতিযোগিতায় কাঙ্ক্ষিত অংশগ্রহণ এবং বর্ণাঢ্য আয়োজনে উপজেলা পর্বের সফল সমাপ্তিতে মনে কোনো কষ্ট থাকে না।



পরিশেষে, দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠ পত্রিকার সম্পাদক, প্রধান সম্পাদক, বার্তা সম্পাদকসহ সংশ্লিষ্ট সকলের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করি। এছাড়াও আমার সংবাদ প্রেরণসহ বিভিন্ন সহযোগিতার জন্যে সকলের নিকট কৃতজ্ঞতা ও মহান আল্লাহতায়লার শোকরিয়া আদায় করছি। এ পত্রিকা যতোদিন থাকবে, পত্রিকার সাথে যেনো কাজ করতে পারি। যতোদিন সুস্থ থাকি কোনো অপশক্তি যাতে লেখা হতে বিরত করাতে না পারে সেজন্যে মহান সৃষ্টিকর্তার সাহায্য প্রার্থনা করছি।



পত্রিকার ২৫ বছরপূর্তি উপলক্ষে পত্রিকার উত্তরোত্তর সাফল্য কামনা করছি। এ পত্রিকাটি যাতে আজীবন পাঠকপ্রিয়তা ধরে রাখতে পারে মহান আল্লাহতায়ালার নিকট প্রার্থনা করছি। পত্রিকার সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাই।



 



লেখক : সহ-সম্পাদক (অনলাইন)



ও মতলব ব্যুরো ইনচার্জ,



দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠ।



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৫৯৫৭৯৭
পুরোন সংখ্যা