চাঁদপুর। মঙ্গলবার ২ অক্টোবর ২০১৮। ১৭ আশ্বিন ১৪২৫। ২১ মহররম ১৪৪০
redcricent
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৪২-সূরা শূরা


৫৪ আয়াত, ৫ রুকু, মক্কী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


১৪। তাদের নিকট তাওহীদের জ্ঞান আসার পরও শুধুমাত্র পারস্পরিক বাড়াবাড়ির কারণে তারা নিজেদের মধ্যে মতভেদ ঘটায়; এক নির্ধারিত কাল পর্যন্ত অবকাশ সম্পর্কে তোমার প্রতিপালকের পূর্ব সিদ্ধান্ত না থাকলে তাদের বিষয়ে ফয়সালা হয়ে যেতো। তাদের পর যারা কিতাবের উত্তরাধিকারী হয়েছে তারা বিভ্রান্তিকর সন্দেহে রয়েছে।


দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


 


 


 


নিজেকে কখনো অপরের চেয়ে ছোট মনে করো না। -জন কিপলিং।


 


 


পবিত্র হওয়াই ধর্মের অর্থ।


 


 


 


ফটো গ্যালারি
চাঁদপুর সদর ও হাইমচর উপজেলায়
৪৩ কোটি টাকা ব্যয়ে ৪৯টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নির্মাণ কাজ সম্পন্ন
শিক্ষাঙ্গন ডেস্ক
০২ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর জেলা সদরে ও নদী ভাঙনের শিকার হাইমচর উপজেলার ৪৯টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নতুন ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। ২০০৯ খ্রিস্টাব্দ থেকে ২০১৮ খ্রিস্টাব্দের জুন মাস পর্যন্ত সরকার এ দুই উপজেলায় ৪৩ কোটি ১৫ লাখ ৩৩ হাজার টাকার উন্নয়নমূলক কাজ করেছে। আর এসব কাজ বাস্তবায়ন করেছে সরকারের শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর।



সংসদীয় আসন বিন্যাসে এটি চাঁদপুর-৩ আসন। এ আসনের সংসদ সদস্য সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি। আর এ আসনে ১টি পৌরসভা ও ২০টি ইউনিয়ন পরিষদ রয়েছে। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উন্নয়মূলক কাজের এসব তথ্য শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর চাঁদপুর কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে।



জানা যায়, শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর ২০০৯ খ্রিস্টাব্দ থেকে ২০১৮ খ্রিস্টাব্দের জুন মাস পর্যন্ত চাঁদপুর সদর ও হাইমচর উপজেলায় ৮টি কলেজ, ৩৩টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ১২টি মাদ্রাসা ও ৩ টি অফিস এবং অন্যান্য ভবনসহ সর্বমোট ৪৯টি ভবনের নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করেছে। নির্মাণের জন্যে অনুমোদন হওয়া ৭টি ভবনের কাজ চলমান রয়েছে। নির্মাণকৃত ভবনের কাজে সরকারের ব্যয় হয়েছে ৪৩ কোটি ১৫ লাখ ৩৩ হাজার টাকা।



চাঁদপুর সদর ও হাইমচরে নতুন ভবন, ঊর্ধ্বমুখী সমপ্রসারণ কাজ হয়েছে চাঁদপুর সরকারি কলেজ, পুরাণবাজার ডিগ্রি কলেজ, ফরক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজ, খেরুদিয়া স্কুল এন্ড কলেজ, শাহতলী জিলানী চিশতী কলেজ, বাবুরহাট স্কুল এন্ড কলেজ, কামরাঙ্গা স্কুল এন্ড কলেজ ও হাইমচর সরকারি মহাবিদ্যালয়। এছাড়া অগ্রাধিকার ভিত্তিতে মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও মাদরাসা ভবন নির্মাণ করা হয়েছে।



হাইমচর সরকারি মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ মনোয়ার হোসেন মোল্লা জানান, নদী ভাঙনের শিকার হয়েছে এ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি। এ কারণে এখানে একটি ভবন মেঘনার পাড়ে এবং আরেকটি ভবন উপজেলা সদরের নিকটে। বর্তমানে কলেজের ৩ তলা একটি ভবনের নির্মাণ কাজ চলছে। নির্মাণ কাজ শেষ হলে শিক্ষার্থীদের দীর্ঘ দিনের শ্রেণিকক্ষ সংকট সমাধান হবে। আর কলেজের স্নাতক শ্রেণির পাঠদান মেঘনার পাড়ের ভবনে হচ্ছে।



চাঁদপুর সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অধ্যক্ষ ড. এ এস এম দেলওয়ার হোসেন জানান, চাঁদপুর সরকারি কলেজের পুরনো ভবনের ঊর্ধ্বমুখী ও একটি ভবন করে দিয়েছে সরকার। এছাড়া ছাত্রীদের জন্য দুটি হোস্টেল নির্মাণ করা হয়েছে। এতে করে শ্রেণিকক্ষ অনেকগুণ বেড়েছে এবং গ্রামাঞ্চলের মেয়েদের আবাসনের সুব্যবস্থা হয়েছে। পূর্বে মেয়েদের শহরের বিভিন্ন বাসায় ভাড়া নিয়ে থাকতে হয়েছে।



চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র নাছির উদ্দিন আহমেদ বলেন, শেখ হাসিনার সরকার উন্নয়নে বিশ্বাসী। চাঁদপুরের অন্য আসনগুলোর তুলনায় এই সদর আসনে অনেক বেশি উন্নয়ন কাজ হয়েছে। বিশেষ করে শিক্ষা ব্যবস্থার বিকাশের জন্য নতুন শ্রেণিকক্ষ নির্মাণ করা হয়েছে। এখানে মোট ৪৯টি প্রতিষ্ঠানের কাজ সম্পূর্ণ হয়েছে। আরো কয়েকটি চলমান রয়েছে যা অচিরেই সমাপ্ত হবে।



অন্যদিকে এমন উন্নয়ন কর্মকা-ের জন্যে প্রতিষ্ঠান প্রধানগণ ডাঃ দীপু মনি এমপি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানান। আগামীতেও চাঁদপুরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর উন্নয়ন কর্মকা- অব্যাহত থাকবে_এমন প্রত্যাশা চাঁদপুরবাসীর।



সূত্র : বাসস



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৭৩৩৮৪৮
পুরোন সংখ্যা