চাঁদপুর। বুধবার ১৫ নভেম্বর ২০১৭। ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৪। ২৫ সফর ১৪৩৯

বিজ্ঞাপন দিন

বিজ্ঞাপন দিন

সর্বশেষ খবর :

  • ---------
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৩২- সূরা সেজদাহ

৩০ আয়াত, ৪ রুকু, ‘মক্কী’

পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।

১। আলিফ-লাম-মীম

২। এই কিতাবের অবতরণ বিশ্ব পালনকর্তার নিকট থেকে, এতে কোনো সন্দেহ নাই।

৩। তারা কি বলে,  এটা আপনি মিথ্যা রচনা করেছেন? বরং এটা আপনার পালনকর্তার তরফ থেকে সত্য, যাতে আপনি এমন এক সম্প্রদায়কে সতর্ক করেন, যাদের কাছে আপনার পূর্বে কোনো সতর্ককারী আসেনি। আশা করা যায় এরা সুপথপ্রাপ্ত হবে।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


সফলতা কখনো অন্ধ হয় না।


-টমাস হাডি।


মানবতাই মানুষের শ্রেষ্ঠতম গুণ।

 


বিটুমিন নিয়ে বিটলেমি এবং সড়কের দুরবস্থা
১৫ নভেম্বর, ২০১৭ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+

উইকিপিডিয়া থেকে জানা যায়, আস্ফাল্ট কুচকুচে কালো অর্ধতরল পদার্থ, যা অপরিশোধিত পেট্রলিয়াম থেকে পাওয়া যায়। আবার প্রাকৃতিকভাবেও পাওয়া যায়। এর প্রয়োগ হয় সড়ক নির্মাণ, রানওয়ে ইত্যাদি নির্মাণ কাজে। আস্ফাল্ট শব্দটি প্রায়শ বিটুমিনকে বোঝাতে ব্যবহার হয়। পেট্রল, কেরোসিন, ডিজেল ইত্যাদি বের করার পর যা বাঁচে তা-ই আস্ফাল্ট বা বিটুমিন। প্রক্রিয়াগত পার্থক্য সৃষ্টি করে আলাদা আলাদা গুণ-মানের বিটুমিন উৎপন্ন করা যায়। প্রয়োজন মত বেশি গাঢ় বা কম গাঢ় করা যায়। যেখানে প্রকৃত বা উন্নত মানের বিটুমিন ব্যবহার সম্ভব নয়, সেখানে কোনো উদ্বায়ু পদার্থের মিশ্রণ দিয়ে তরল ও মসৃণ করে ব্যবহার করা হয়। কোনো কোনো ক্ষেত্রে, যেমন ভেজা বা স্যাঁতস্যাঁতে রাস্তার মাঝে লাগানোর জন্যে বিটুমিনের সাথে পানি মিশিয়ে ইমালশন তৈরি করা হয়।

এক পরিসংখ্যানে জানা যায়, বিটুমিন ব্যবহারের ওপর নির্ভরশীল রাস্তা নির্মাণে ইউরোপে প্রতি কিলোমিটারে ব্যয় হয় ২৮ কোটি টাকা, যুক্তরাষ্ট্রে ৩০ কোটি টাকা, চীনে ১৩ কোটি টাকা, ভারতে ১০ কোটি টাকা এবং আশ্চর্যজনক হলেও সত্য, ভারতের প্রতিবেশী দেশ আমাদের বাংলাদেশে ব্যয় হয় ৯৪ কোটি ৯০ লাখ টাকা। কিন্তু তারপরও বাংলাদেশে অধিকাংশ ক্ষেত্রে প্রকৃত বা উন্নতমানের বিটুমিনের ব্যবহার করা হয় না। দৈনিক জনকণ্ঠের এক খবরে প্রকাশ, গেল বর্ষা মৌসুমে অতি ভারী বর্ষণে দেশের বিভিন্ন স্থানে জলজটসহ বিভিন্ন কারণে নতুন ও পুরানো সড়কের যে দুর্দশা হয়েছে তার নেপথ্যের বিভিন্ন কারণের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে বিদেশ থেকে আমদানিকৃত নিম্নমানের বিটুমিন ব্যবহার। দেশে সরকারি ও বেসরকারি পর্যায়ে বিটুমিনের চাহিদা বছরে প্রায় ৮০ হাজার টন। এ চাহিদার অনুরূপ উন্নত বিটুমিন (৬০-৭০ গ্রেড) সরকার নিয়ন্ত্রিত চট্টগ্রামের ইস্টার্ন রিফাইনারিতে বছরে ৭০ হাজার টন এবং বাকি ১০ হাজার টন বেসরকারি মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানে উৎপাদিত হচ্ছে। এই বিটুমিনের মূল্য ড্রাম প্রতি সাড়ে ৬ হাজার টাকা। পক্ষান্তরে বিদেশ থেকে আমদানিকৃত ১০০/৮০ গ্রেডের নিম্নমানের বিটুমিনের মূল্য ৫ হাজার ২শ' টাকা। মূল্যের এই তারতম্যের কারণে ঠিকাদাররা বিভিন্ন সংস্থার সঙ্গে গোপন যোগসাজশের মাধ্যমে বিদেশ থেকে আমদানিকৃত নিম্নমানের বিটুমিন ব্যবহার করছে সড়ক নির্মাণ ও সংস্কার কাজে। এর সঙ্গে নিম্নমানের সিমেন্ট, বালি, ইটসহ অন্যান্য সামগ্রী তো রয়েছেই। ফলে যা হবার তা-ই হচ্ছে, দ্রুততম সময়ে বিভিন্ন সড়ক বেহাল রূপ পাচ্ছে।

চাঁদপুর কণ্ঠে গত সোমবার শীর্ষ সংবাদের শিরোনাম

দেয়া হয়েছে এমন-'শাহরাস্তিতে প্রধান সড়ক সংস্কারের নামে যেনো চলছে তামাশা : একদিকে চলছে সংস্কার কাজ, আরেকদিকে কার্পোটিং উঠে পূর্বের বেহাল অবস্থায় ফিরে যাচ্ছে এলাকাবাসী ও জনপ্রতিনিধিদের ক্ষোভ'। এ সংবাদের গর্ভে রয়েছে পৌর মেয়র হাজী আঃ লতিফের বক্তব্য। তিনি বলেছেন, ঠিকাদার সড়কটির সংস্কার কাজে ঠিকমত বিটুমিন দিচ্ছে না। আমি বলেছি, টেন্ডারে যেটুকু ধরা আছে সেটুকু দিতে। কিন্তু আমার কথা শুনছে না।

আমরা দেশের স্বার্থে বিভিন্ন সড়কের সংস্কার ও নির্মাণ কাজে দেশে উৎপাদিত উন্নতমানের বিটুমিনের সঠিক ব্যবহার নিশ্চিত করতে ঠিকাদারদের প্রতি সনির্বন্ধ অনুরোধ জানাচ্ছি। আর তদারককারী কর্মকর্তাদেরকে ঠিকাদারদের কাছ থেকে ব্যক্তিগত সুবিধা প্রাপ্তির লোভ-লালসাকে সংবরণ করে কিংবা নূ্যনতম পরিমিতি বোধের মধ্যে থেকে হলেও নির্ধারিত দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করার বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি। আমরা মনে করি, কারো অর্থপূর্ণ ঔদাসীন্য ও দায়িত্বে অবহেলার কারণে দেশের প্রধান যোগাযোগ মাধ্যম সড়ক বার বার দুর্দশাগ্রস্ত হয়ে জনদুর্ভোগ বাড়ানোর বিশেষ উপলক্ষে পরিণত হতে পারে না।

এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
৫২৮২৩২
পুরোন সংখ্যা