চাঁদপুর। সোমবার ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭। ৪ পৌষ ১৪২৪। ২৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯
redcricent
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • হাজীগঞ্জে পানিতে ডুবে দুই ভাইয়ের মৃত্যু
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৩৩-সূরা আহ্যাব

৭৩ আয়াত, ৯ রুকু, মাদানী

পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।

 ২৯। আর যদি তোমরা কামনা কর আল্লাহ্, তাঁহার রাসূল ও আখিরাত, তবে তোমাদের মধ্যে যাহারা সৎকর্মশীল আল্লাহ্ তাহাদের জন্য মহাপ্রতিদান প্রস্তুত রাখিয়াছেন।'

৩০। হে নবী-পতিœগণ!  যে কাজ স্পষ্টত অশ্লীল, তোমাদের মধ্যে কেহ তাহা করিলে তাহাকে দ্বিগুণ শাস্তি দেওয়া হইবে এবং ইহা আল্লাহর জন্য সহজ।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


মন যখন অন্যত্র, চোখ তখন বন্ধ।  

-পাবলিয়াস সাইরাস।


মুসলমানগণের মধ্যে যার স্বভাব সবচেয়ে ভালো সে-ই সর্বাপেক্ষা ভালো ব্যবহার করে, তারাই তোমাদের মধ্যে সর্বাপেক্ষা শ্রেষ্ঠ  ব্যক্তি।


ফটো গ্যালারি
চাঁদপুরে মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ডাঃ দীপু মনি এমপি
বর্তমান সরকার মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সরকার, এর ধারাবাহিকতা রক্ষায় আপনাদের সহযোগিতা চাই
চাঁদপুর কণ্ঠ রিপোর্ট
১৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে। এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ডাঃ দীপু মনি এমপি। ১৬ ডিসেম্বর শনিবার সকাল ১১টায় চাঁদপুর সার্কিট হাউজে এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।



 



প্রধান অতিথির বক্তব্যে ডাঃ দীপু মনি বলেন, শেখ হাসিনার সরকার মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সরকার, জাতির জনকের আদর্শের সরকার। তাই এ সরকারের ধারাবাহিকতা রক্ষায় জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগিতা চাই। এই সরকার যাতে পুনরায় ক্ষমতায় এসে মুক্তিযোদ্ধাদের তথা জাতির জনকের স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে পারে সে প্রচেষ্টা আমাদের প্রত্যেকের করতে হবে। বিশেষ করে মুক্তিযোদ্ধাদের সক্রিয় ভূমিকা রাখতে হবে। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনাদের জন্যেই আমরা একটি স্বাধীন দেশের নাগরিক। আপনাদের সুন্দর জীবন-যৌবন উৎসর্গ করেছেন আমাদের জন্যে, আমাদের সন্তানদের জন্যে। তাই আপনাদের সম্মানিত করলে জাতি সম্মানিত হয়। আর আপনাদেরকে কেউ অসম্মান করলে জাতিকে অসম্মান করা হয়। সেজন্যে আপনাদের এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আসতে পারলে আমি নিজেকে খুব গর্বিত মনে করি। তিনি বলেন, স্বাধীনতার ৪৬ বছরের মধ্যে ২৮ বছর এ দেশটিকে শাসন করেছেন যারা স্বাধীনতায় বিশ্বাস করে না। মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে পাওয়া এ দেশটি অধিক সময়কাল একাত্তরের পরাজিত শক্তি শাসন করেছে। সে সময় মুক্তিযোদ্ধারা ছিলেন চরম উপেক্ষিত। তাঁদের ওপর অনেক নির্যাতন করা হয়েছে। অবশেষে স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির জনকের কন্যা যখন ক্ষমতায় আসলো তখন আবার সেই অন্ধকার থেকে দেশটিকে আলোর পথে তিনি নিয়ে যেতে লাগলেন। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের সকল দিক দিয়ে সম্মানিত করতে লাগলেন এবং অসহায় ও দুঃস্থ মুক্তিযোদ্ধারা যাতে সমাজে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে পারে সে ব্যবস্থা করলেন। তাই আমি আজকের এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মুক্তিযোদ্ধাদের বলবো, ২০০৮ সালের নির্বাচনে যেভাবে আপনারা ভূমিকা রেখেছেন, তেমনি ২০১৯ সালে অনুষ্ঠিতব্য একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও নৌকার বিজয়ে আপনাদের ভূমিকা রাখতে হবে। আগামী দিনেও আপনাদের সহযোগিতায় এগিয়ে যেতে চাই। আপনারাই আমার ভরসা, আপনারাই আমার চলার পাথেয়।



 



জেলা প্রশাসন ও জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের আয়োজনে এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সভাপ্রধান ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুস সবুর মন্ডল পিএএ। বিশেষ অতিথি ছিলেন পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার পিপিএম, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, জেলা প্রশাসকের সহধর্মিণী আখতারী জামান, স্বাধীনতা পদকপ্রাপ্ত নারী মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ সৈয়দা বদরুন নাহার চৌধুরী, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার এমএ ওয়াদুদ, সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আবুল কালাম মোঃ শামছুল আলম চিশ্তী ও বিজয় মেলার চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা মহসিন পাঠান। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) অভিষেক দাস। উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মঈনুল হাসান, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কানিজ ফাতেমাসহ প্রশাসনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা ও বিপুল সংখ্যক মুক্তিযোদ্ধা।



সভাপ্রধানের বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, বিজয় দিবসে যেনো একজন মুক্তিযোদ্ধাও কোনোভাবে কষ্ট না পায়। প্রতিটি মুক্তিযোদ্ধার জন্যে বাসস্থান নিশ্চিত করবে বর্তমান সরকার। যাদের জমি আছে কিন্তু বাড়ি নেই, তাদের বাড়ি করে দেবে, আর যাদের কোনো ভিটেমাটিই নেই তাদের বাসস্থানের ব্যবস্থা করে দেবে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার সরকার।



 



 



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৫৪৬০৫৩
পুরোন সংখ্যা