চাঁদপুর। সোমবার ১৬ এপ্রিল ২০১৮। ৩ বৈশাখ ১৪২৫। ২৮ রজব ১৪৩৯
redcricent
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • হাজীগঞ্জে পানিতে ডুবে দুই ভাইয়ের মৃত্যু
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৩৭- সূরা আস-সাফফাত

১৮২ আয়াত, ৫ রুকু, মক্কী

পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।

২৯। তারা বলবে, বরং তোমরা তো বিশ^াসীই ছিলে না।

৩০। এবং তোমাদের উপর আমাদের কোনো কর্তৃত্ব ছিল না, বরং তোমরাই ছিলে সীমা লংঘনকারী সম্প্রদায়।

৩১। আমাদের বিপক্ষে আমাদের পালনকর্তার উক্তিই সত্য হয়েছে। আমাদেরকে অবশ্যই স্বাদ আস্বাদন করতে হবে।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


দারিদ্র্যকে যে মাথা পেতে গ্রহণ করে, সে ব্যক্তিত্বহীন পুরুষ।         


-লংফেলো।




মানুষ মিথ্যাবাদী সাব্যস্ত হবার জন্যে এটাই যথেষ্ট যে, সে যা শোনে (যাচাই না করে) তা-ই বলে বেড়ায়।  

 


ফটো গ্যালারি
ধর্ম এবং সংস্কৃতিকে এক করে ফেলা ঠিক নয়, দূর হোক সকল কূপমন্ডুকতা : ডাঃ দীপু মনি এমপি
চাঁদপুর কণ্ঠ রিপোর্ট
১৬ এপ্রিল, ২০১৮ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


'বাঙালির প্রাণের উৎসব বর্ষবরণ। এ বর্ষবরণের সঙ্গে আমাদের জাতিসত্তার একটা অবিচ্ছেদ্য সম্পর্ক রয়েছে। বাঙালি যেমন ধর্মভীরু জাতি, তেমনি উৎসবপ্রিয়ও। নিজেদের আত্মপরিচয় যেখানে, যেখানে শেকড়ের সন্ধান মেলে, সেখানে বাঙালি ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে একাকার হয়ে যায়, প্রাণের উচ্ছ্বাসে উৎসবে মেতে উঠে। এখানে ধর্মকে টেনে আনা ঠিক নয়। ধর্ম এবং সংস্কৃতিকে এক করে ফেলা ঠিক নয়। আমরা বাঙালি ধর্মভীরু, ধার্মিক, কিন্তু ধর্মান্ধ নই। এই যে আজকের দিনে বাঙালির যে প্রাণের উচ্ছ্বাস, তা এ জাতিকে একটি জায়গায় এনে দেয়, তা হচ্ছে আমরা সকল মিথ্যে, সকল জরা, গ্লানি, ধর্মান্ধতা, কূপম-ুকতা, পশ্চাৎপদতা, সকল হিংসা, দীনতা-হীনতা দূরে ঠেলে দিতে হবে এবং আমাদের চিন্তা-চেতনা হবে আকাশের মতো বিস্তৃতি আর সাগরের মতো গভীর।'



১৪২৫ বঙ্গাব্দের বর্ষবরণ তথা পহেলা বৈশাখ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলা নববর্ষকে নিয়ে এভাবেই অভিব্যক্তি প্রকাশ করলেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি, সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি। চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে ১৪ এপ্রিল ও ১ বৈশাখ শনিবার চাঁদপুর প্রেসক্লাব ঘাট সংলগ্ন ডাকাতিয়ার উন্মুক্ত তীরভূমিতে ওই বৈশাখী উৎসবের আয়োজন ছিলো। সকাল ১১টায় জেলা প্রশাসক মোঃ মাজেদুর রহমান খানের সভাপ্রধানে অনুষ্ঠানে ডাঃ দীপু মনি আরো বলেন, আজকের বাংলাদেশ অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে চলছে। আর এ এগিয়ে চলার পেছনে রহস্য একটাই, তা হচ্ছে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ। তাই আমাদের অসাম্প্রদায়িক ও গণতান্ত্রিক চেতনায় পরমতসহিষ্ণুতায় এগিয়ে যেতে হবে। আমরা যেনো আরো উদ্যমী হই, এগিয়ে যাই। আজকের এই দিনে মহান সৃষ্টিকর্তার কাছে আমাদের প্রার্থনা, তিনি যেনো আমাদের সে শক্তি দেন। এ পর্বে আরো বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল। মঞ্চে উপবিষ্ট ছিলেন পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার পিপিএম ও চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইকবাল হোসেন পাটওয়ারী।



এর আগে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা শেষে এ অনুষ্ঠানস্থলে উদ্বোধনী পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক মোঃ মাজেদুর রহমান খান। বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার পিপিএম, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র আলহাজ্ব নাছির উদ্দিন আহমেদ, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ওচমান গনি পাটওয়ারী, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডঃ মজিবুর রহমান ভূঁইয়া ও চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইকবাল হোসেন পাটওয়ারী। উপস্থাপনায় ছিলেন তপন সরকার ও অ্যাডঃ বদিউজ্জামান কিরন। সংগীত নিকেতনের শিল্পীদের পরিবেশনার মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা হয়।



ডাঃ দীপু মনির এমপির উপস্থিতিতে আলোচনা পর্বে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণকারীদের মধ্য থেকে বিজয়ীদের পুরস্কৃত করা হয়। এরা হচ্ছে 'ক' গ্রুপে ১ম মাতৃপীঠ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, ২য় পৌর শহীদ জাবেদ উচ্চ বিদ্যালয় ও ৩য় গনি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়। আর 'খ' গ্রুপে ১ম মোহন বাঁশি স্মৃতি সংসদ, ২য় বঙ্গবন্ধু আবৃত্তি পরিষদ ও ৩য় সুরধ্বনি সংগীত একাডেমি।



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৬২৮৩৭৮
পুরোন সংখ্যা