চাঁদপুর, শুক্রবার ২২ মার্চ ২০১৯, ৮ চৈত্র ১৪২৫, ১৪ রজব ১৪৪০
redcricent
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৪৯-সূরা হুজুরাত


১৮ আয়াত, ২ রুকু, 'মাদানী


৩। যাহারা আল্লাহর রাসূলের সম্মুখে নিজেদের কণ্ঠস্বর নীচু করে, আল্লাহ তাহাদের অন্তরকে তাকওয়ার জন্য পরীক্ষা করিয়া লইয়াছেন। তাহাদের জন্য রহিয়াছে ক্ষমা ও মহাপুরস্কার।


 


 


 


assets/data_files/web

যে-লোক তার সুযোগ হারায় সে নিজেকে হারায়।      


-জি. মরু।


মানবতাই মানুষের শ্রেষ্ঠতম গুণ।













 


ফটো গ্যালারি
ফরিদগঞ্জে নৌকার জনসভায় আওয়ামী লীগ নেতাদের মহামিলন সকল বিভেদ ভুলে নৌকার বিজয়ে একাট্টা
নৌকার প্রার্থী রোমানকে বিজয়ী করে উন্নয়নের মহাসড়কে নিজেদের অবস্থান সুদৃঢ় করুন : জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি নাছির উদ্দিন আহাম্মেদ
প্রবীর চক্রবর্তী
২২ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


ফরিদগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নৌকা মার্কার সর্বশেষ জনসভা গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ জনসভায় আওয়ামী লীগের সকল পর্যায়ের নেতাদের একমঞ্চে উপস্থিতি ছিলো চোখে পড়ার মতো। এ যেনো আওয়ামী লীগ নেতাদের মহামিলন। সকল বিভেদ ভুলে নৌকার বিজয়ে নেতারা একাট্টা হয়েছেন।



ফরিদগঞ্জ পৌরসভা মাঠে পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মাহফুজুল হকের সভাপ্রধানে অনুষ্ঠিত এ জনসভায় প্রধান অতিথি ছিলেন চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র মোঃ নাছির উদ্দিন আহামেদ। প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, স্বাধীনতা, অর্থনৈতিক মুক্তি ও উন্নয়নের প্রতীক হচ্ছে নৌকা। নৌকা প্রতীকের বিজয় মানে এলাকায় উন্নয়নের জোয়ার বয়ে যাওয়া। ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ, স্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নয়ন, বছরের প্রথমদিন শিক্ষার্থীদের হাতে বই তুলে দেয়াসহ নানা উন্নয়ন কর্মকা-ের চিত্র গত দশ বছরে চাঁদপুরসহ দেশবাসী দেখেছে। ফলে তারা সকল নির্বাচনে নৌকার পক্ষে রায় দিয়েছে। বিগত সংসদ নির্বাচনে সারাদেশের মতো ফরিদগঞ্জ উপজেলার মানুষ বিপুল ভোটে নৌকাকে বিজয়ী করেছে। আগামী ২৪ মার্চ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জনগণের কাছে আবারো নৌকাকে বিজয়ী করার সুযোগ এসেছে। তাই এবার ফরিদগঞ্জে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী অ্যাডঃ জাহিদুল ইসলাম রোমানকে বিজয়ী করে উন্নয়নের মহাসড়কে নিজেদের অবস্থান সুদৃঢ় রাখবে এ প্রত্যাশা করছি। তিনি বলেন, নৌকা যার আমরা তার। আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ-সংগঠনের নেতা-কর্মীদের তাই নৌকার বিশাল বিজয় নিশ্চিত করতে এবং বিজয় সস্নিপ হাতে নিয়ে ঘরে ফেরার আহ্বান জানান তিনি।



চেয়ারম্যান প্রার্থী অ্যাডঃ জাহিদুল ইসলাম রোমান তাঁর বক্তব্যে বলেন, নৌকা আমাদের রক্তে মিশে আছে। তাই নৌকার কথা শুনলে ঘরে থাকতে পারে না আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু নৌকার বিজয়ের মাধ্যমে স্বাধীনতার বীজ বপন করেছেন এবং স্বাধীনতা এনে দিয়েছেন। তাঁর সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা সেই নৌকার বিজয় অর্জন করে গত দশ বছরে উন্নয়নের জোয়ারের মাধ্যমে দেশকে অর্থনৈতিক মুক্তির পথে নিয়ে চলেছেন। তাই উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করে আসুন আমরা সকলে সেই মুক্তির পথে এগিয়ে যাই।



ফরিদগঞ্জ পৌর আওয়ামী লীগের আয়োজনে পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মোতাহার হোসেন রতনের পরিচালনায় এ জনসভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখতে গিয়ে চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম দুলাল পাটওয়ারী বলেন, নৌকার বাইরে কারো যাওয়ার সুযোগ নেই। আওয়ামী লীগের কোনো নেতা-কর্মী দলের বাইরে গিয়ে কাজ করলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। আমরা বঙ্গবন্ধুর সৈনিক। তাই দলের বিরুদ্ধে যাওয়ার প্রশ্নই ওঠে না। এরপরও নেতা-কর্মীরা কে কি করছেন, তা আমাদের নজরে রয়েছে। কোনো ষড়যন্ত্র সহ্য করা হবে না।



এছাড়া অতিথি হিসেবে জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও ফরিদগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল খায়ের পাটওয়ারী, জেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডাঃ হারুনুর রশিদ সাগর, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক আবুল কাশেম, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক রফিকুল আমিন কাজল, ফরিদগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সাহেদ সরকার, হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ চাঁদপুর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অ্যাডঃ রনজিৎ রায় চৌধুরী, আওয়ামী লীগ নেতা আমির আজম রেজা, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মহিউদ্দিন খোকা, জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা আমন উল্যাহ মিজান রাজু চৌধুরী ও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির স্বাস্থ্য বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য ডাঃ বদরুন্নাহার ভূঁইয়া বক্তব্য রাখেন। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদ সদস্য মশিউর রহমান মিটু, সাইফুল ইসলাম রিপন, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক আকবর হোসেন মনির, উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক বিল্লাল হোসেন পাটওয়ারী, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মাহবুব আলম সোহাগ, যুব মহিলা লীগের আহ্বায়ক সুলতানা রাজিয়া দিপু। এছাড়া চাঁদপুর সদর উপজেলার বালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তাজুল ইসলাম মিজিসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দও এ জনসভায় যোগ দেন। এর আগে পৌর এলাকার প্রতিটি ওয়ার্ড থেকে মিছিলের পর মিছিল এসে পৌরসভা মাঠে জড়ো হয়। পুরো এলাকা লোকে লোকারণ্য হয়ে ওঠে।



 


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
১০০৪৩২৮
পুরোন সংখ্যা