চাঁদপুর, বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০১৯, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ৯ শাওয়াল ১৪৪০
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • চাঁদপুর ডায়াবেটিক হাসপাতালের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক, কিংবদন্তীতুল্য সমাজসেবক আলহাজ্ব ডাঃ এম এ গফুর আর বেঁচে নেই। আজ ভোর ৪টায় ঢাকার শমরিতা হাসপাতালে ইন্তেকাল করেছেন।ইন্নালিল্লাহে ওয়া ইন্না ইলাইহে রাজিউন।বাদ জুমা পৌর ঈদগাহে জানাজা শেষে বাসস্ট্যান্ড গোর-এ-গরিবা কবরস্থানে তাঁকে দাফন করা হবে।
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৪-সূরা কামার


৫৫ আয়াত, ৩ রুকু, মক্কী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


 


 


 


assets/data_files/web

যাকে মান্য করা যায় তার কাছে নত হও। -টেনিসন।


 


 


যারা ধনী কিংবা সবকালয়, তাদের ভিক্ষা করা অনুচিত।


 


 


ফটো গ্যালারি
মেঘনার চরে বেড়াতে গিয়ে নদীতে কলেজ ছাত্র নিখোঁজ
শওকত আলী
১৩ জুন, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর বড় স্টেশন মোলহেড থেকে প্রায় ৭ কিঃ মিঃ পশ্চিমে জেগে ওঠা মেঘনার চরে আনন্দ করতে গিয়ে এক কলেজ ছাত্র নদীতে তলিয়ে গেছে। সাথের বন্ধুরাসহ নদীতে আনন্দ করতে গিয়ে মেঘনার ঢেউয়ের আঘাতে রাশেদুল ইসলাম রাফিদ (১৮) নদীতে তলিয়ে যায়। তাকে উদ্ধারে দমকল বাহিনীর ডুবুরিরা অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে। গতকাল বুধবার সকালে ৮জনের একটি দল কুমিল্লা থেকে চাঁদপুর মেঘনার চরে আসে। সেখানেই একত্রে নদীতে গোসল করতে গিয়ে আনন্দ করা অবস্থায় রাফিদ নিখোঁজ হয়। ঘটনাটি ঘটেছে দুপুর আনুমানিক ২টায়। রাফিদ কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ড মডার্ন কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী।



ঘটনার পর পর খবর পেয়ে চাঁদপুর নৌ-পুলিশ, ফায়ার সার্ভিসের উপ-পরিচালক ফরিদুল ইসলাম, ফায়ার সার্ভিস কর্মী ও ডুুবুরিরা মেঘনা নদীর পশ্চিম পাড়ের চর এলাকার নদীতে ব্যাপক তল্লাশি চালিয়ে যাচ্ছে শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধারের জন্যে। এছাড়া অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ জামান ও সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কানিজ ফাতেমা ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার কার্যক্রম তদারকি করেন।



চাঁদপুর নৌ-থানার সেকেন্ড অফিসার গিয়াস উদ্দিন জানান, কুমিল্লা থেকে কলেজের ৮ শিক্ষার্থী চাঁদপুরের মেঘনার পশ্চিম পাড়ে (মিনি কঙ্বাজার খ্যাত) বালুচরে ঘুরতে আসে। তারা নদীতে নেমে সাঁতার কেটে আনন্দ করছিলো। দুপুর ২টার দিকে নদীতে পানি বৃদ্ধি পেলে ৮ শিক্ষার্থীর মধ্যে রাশেদুল ইসলাম রাফিদ মেঘনায় তলিয়ে যায়। তাৎক্ষণিক অন্য ৭ বন্ধু রাফিদকে অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে নৌ-পুলিশকে ঘটনা সম্পর্কে অবহিত করে। এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত নৌ-পুলিশের এএসআই আবদুল হালিমের নেতৃত্বে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের উপ-পরিচালক ফরিদুল ইসলামের নেতৃত্বে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা মেঘনা নদীতে ব্যাপক তল্লাশি চালিয়ে যাচ্ছে।



নিখোঁজ শিক্ষার্থী রাশেদুল ইসলাম রাফিদের সহপাঠী রুবায়েদ সাবাব সাংবাদিকদের জানান, বুধবার সকালে তারা ৮ বন্ধু চাঁদপুর বেড়াতে আসে। এ সময়ে তারা মেঘনা নদীর চরে (মিনি কঙ্বাজার) যায়। চরে গিয়ে সবাই মিলে পানিতে নেমে সাঁতার কাটতে থাকে। বেলা পৌনে ১টায় জোয়ারের পানি বৃদ্ধি পেলে সাঁতার না জানা রাশেদুল ইসলাম রাফিদ পানিতে তলিয়ে যায়। তখন বন্ধুদের চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে আসলেও কেউ রাফিদের সন্ধান পায়নি। খবর পেয়ে চাঁদপুর নৌ দমকল বাহিনীর ডুবুরিরা এসে খুঁজতে থাকে। নিখোঁজ শিক্ষার্থী রাফিদ কুমিল্লার বন কর্মকর্তা রফিকুল ইসলামের একমাত্র ছেলে। তাদের বাসা টমছম ব্রিজ এলাকায়।



চাঁদপুর নৌ-থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবু তাহের খান জানান, কুমিল্লার কলেজ ছাত্র নিখোঁজ হওয়ার খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে যায়। দীর্ঘ সময় ধরে খোঁজাখুঁজি করছে। এখনো পর্যন্ত নিখোঁজ শিক্ষার্থীর খোঁজ পাওয়া যায়নি।



এদিকে মিনি কঙ্বাজার খ্যাত মেঘনার ত্রিমোহনা বীচের উদ্যোক্তাদের একজন অপু কুমার বিশ্বাসের সাথে গতকাল সন্ধ্যায় চাঁদপুর কণ্ঠের পক্ষ থেকে এ বিষয়ে কথা হলে তিনি জানান, নববর্ষের পরদিন থেকেই আমাদের বীচের কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিষয়টি জানেন। তাছাড়া সম্প্রতি বয়ে যাওয়া ঘূর্ণিঝঢ় 'ফণী'র আঘাতে সেখানে আমাদের যেসব স্থাপনা ছিলো সবকিছু ল-ভ- হয়ে গেছে। এখন যদি কোনো ট্রলার সেই মেঘনার চরে কাউকে বেড়াতে নিয়ে গিয়ে থাকে তাহলে এটা হবে প্রতারণা করা।



 


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
৩৮৪৬২৮
পুরোন সংখ্যা