চাঁদপুর, রোববার ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৭ আশ্বিন ১৪২৬, ২২ মহররম ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • অনিবার্য কারণে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনির আজকের চাঁদপুর সফর স্থগিত করা হয়েছে
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৭-সূরা হাদীদ


২৯ আয়াত, ৪ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


০৫। আকাশম-লী ও পৃথিবীর সর্বময় কর্তৃত্ব তাঁহারই এবং আল্লাহরই দিকে সমস্ত বিষয় প্রত্যাবর্তিত হইবে।


০৬। তিনিই রাত্রিকে প্রবেশ করান দিবসে এবং দিবসকে প্রবেশ করান রাত্রিতে এবং তিনি অন্তর্যামী।


 


 


 


assets/data_files/web

মর্যাদা রক্ষার ব্যাপারে আমি নিজের অভিভাবক। -নিকেলাস রান্ড।


 


 


যদি মানুষের ধৈর্য থাকে তবে সে অবশ্য সৌভাগ্যশালী হয়।


 


 


 


ফটো গ্যালারি
উচ্চ শিক্ষার্থে জাপান গেলেন ফরিদগঞ্জের বিল্লাল হোসেন সুমন
ফরিদগঞ্জ ব্যুরো
২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


জাপান সরকারের জেডিএস স্কলারশিপ পেয়ে উচ্চশিক্ষা অর্জনের নিমিত্তে জাপানে গেলেন ফরিদগঞ্জের কৃতী সন্তান মেধাবী যুবক বিল্লাল হোসেন সুমন। গত ২২ আগস্ট তিনি জাপানের সুকুবা ইউনিভার্সিটিতে যান। তিনি ২ বছর মেয়াদী মাস্টার অব এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্সে পড়াশুনা করবেন এবং জিআইএস অ্যান্ড আরএস ভিত্তিক গবেষণা করবেন, যার মাধ্যমে দক্ষিণাঞ্চলের কৃষির টেকসই উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবেন ।



মেধাবী যুবক বিল্লাল হোসেন সুমনের বাড়ি চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ উপজেলার ১৪নং ফরিদগঞ্জ দক্ষিণ ইউনিয়নের পশ্চিম পোয়া গ্রামে। তিনি ওই গ্রামের ভূঁইয়া বাড়ির মৃত শিক্ষক আব্দুল মান্নান ভুঁইয়া ও সাহিদা বেগমের ৪ ছেলে ও দুই মেয়ের মধ্যে চতুর্থ সন্তান। তাঁর বড় ভাই মুহাম্মদ ফখরে আলম ২৭ তম বিসিএস-এর মাধ্যমে শিক্ষা ক্যাডারে যোগদান করেন এবং বর্তমানে চাঁদপুর সরকারি কলেজে গণিত বিভাগে সহকারী অধ্যাপক হিসেবে কর্মরত আছেন। অপর দুই ভাইয়ের মধ্যে একজন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক, অপরজন ঢাকার নামকরা মসজিদের ইমাম ও খতিব। ব্যক্তিগত জীবনে বিল্লাল হোসেন সুমন এক ছেলে এবং এক মেয়ের জনক।



তিনি ২০০৯ সালে অত্যন্ত সফলতার সাথে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএসসি ইন এগ্রিকালচার এবং ২০১০ সালে বায়োটেকনোলজি থেকে মাস্টার্স সম্পন্ন করেছেন। তিনি মাস্টার্সে অসাধারণ ফল অর্জন করায় রাষ্ট্রপতি থেকে স্বর্ণপদক গ্রহণ করেন। পরবর্তীতে তিনি ২০১২ সালে বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস (এগ্রিকালচার) ৩০তম ব্যাচের মাধ্যমে ক্যাডার সার্ভিসে যোগদান করেন। বিল্লাল হোসেনের পিতা মৃত আব্দুল মান্নান ভুঁইয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক ছিলেন। তিনি যেনো খুব সফলতার সাথে জাপানের সুকুবা ইউনিভার্সিটি থেকে মাস্টার্স ডিগ্রি সম্পন্ন করতে পারেন এবং পরবর্তীতে দেশের কৃষির উন্নয়নে অসামান্য অবদান রাখতে পারেন সেজন্যে সকলের কাছে দোয়া প্রার্থী।



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৮৬১৫৯৯
পুরোন সংখ্যা