চাঁদপুর, রোববার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১০ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৮ জমাদিউস সানি ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • চাঁদপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি হওয়া ছেলেটির করোনা ভাইরাস নেগেটিভ পাওয়া গেছে। অর্থাৎ সে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী নয়। তথ্য সূত্র: আরএমও ডাঃ সুজাউদ্দৌলা রুবেল। || বৈদ্যনাথ সাহা ওরফে সনু সাহা করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যায় নি : সিভিল সার্জন
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৪-সূরা তাগাবুন


১৮ আয়াত, ২ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


 


১১। আল্লাহর অনুমতি ব্যতিরেকে কোন বিপদই আপতিত হয় না এবং যে আল্লাহকে বিশ্বাস করে তিনি তাহার অন্তরকে সুপথে পরিচালিত করেন। আল্লাহ সর্ববিষয়ে সম্যক অবহিত।


 


 


 


assets/data_files/web

আমার নিজের সৃষ্টিকে আমি সবচেয়ে ভালোবাসি।


-ফার্গসান্স।


 


 


 


যে শিক্ষা গ্রহণ করে তার মৃত্যু নেই।


 


 


ফটো গ্যালারি
শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের আলোচনা সভা
বায়ান্নর ভাষা আন্দোলনই মূলত বাঙালির স্বাধীনতা অর্জনে অনুপ্রেরণা যোগায়
---------------ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মাহমুদ জামান
গোলাম মোস্তফা
২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর শহরের শহীদ মুক্তিযোদ্ধা সড়কস্থ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে শহীদ বেদিতে শ্রদ্ধার্ঘ অর্পণ, ভোরে প্রভাত ফেরী, সন্ধ্যায় আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় অমর একুশে মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদ্যাপন করেছে চাঁদপুরবাসী। এ দিবসকে কেন্দ্র করে জেলা প্রশাসনের ছিলো দিনব্যাপী কর্মসূচি।



দিবসটি উপলক্ষে চাঁদপুর শিশু একাডেমি আয়োজন করে শিশু-কিশোরদের সাহিত্য সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা। ২১ ফেব্রুয়ারি দুপুর থেকে শুরু করে সন্ধ্যা পর্যন্ত চলে এ কার্যক্রম। সন্ধ্যায় চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে 'ভাষা আন্দোলনে বঙ্গবন্ধু' শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।



আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক (ভারপ্রাপ্ত) মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মাহমুদ জামান বলেন, ভাষা আন্দোলনের বিজয়ের মধ্য দিয়ে মূলত বাঙালি জাতির বিজয়ের সূচনা শুরু হয়। আর এ বিজয় বাঙালি জাতির স্বাধীনতা অর্জনে অনুপ্রেরণা যোগায়। তিনি আরো বলেন, ভাষা আন্দোলনের এতো বছর পেরিয়ে গেলেও আমরা এখনো সর্বস্তরে প্রমিত বাংলা ভাষার ব্যবহার চালু করতে পারি নি। উচ্চ আদালতে এখনো ইংরেজির ব্যবহার হচ্ছে। আমাদের সংবিধানে বলা হয়েছে রাষ্ট্র ভাষা হবে বাংলা। সেই রাষ্ট্রভাষা বাংলা এখনো সর্বস্তরে ছড়িয়ে দেয়া যায় নি। অনেক ক্ষেত্রে বাংলা ভাষাকে আমরা অন্য ভাষার সাথে মিশ্রণ করে বিকৃতভাবে উপস্থাপন করি। এর থেকে আমাদের বের হয়ে আসা উচিত। আজকে আমি নতুন প্রজন্মের কাছে আহ্বান জানাবো, আমরা যখন বাংলা বলবো, তখন প্রকৃত বাংলা অর্থাৎ প্রমিত বাংলা বলবো। যখন ইংরেজি বলবো, তখন শুধুই ইংরেজি বলবো। তিনি বলেন, কোনো ভাষার প্রতিই আমাদের কোনো বিদ্বেষ নেই। তবে বাংলা ভাষাকে আমরা ভালোবেসে গ্রহণ করবো। প্রথমে বাংলা ভাষা, তারপর অন্য ভাষা।



অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এসএম জাকারিয়ার সভাপতিত্বে এবং বিশিষ্ট ছড়াকার ও প্রাবন্ধিক ডাঃ পীযূষ কান্তি বড়ুয়ার সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অপরাধ) মোঃ মিজানুর রহমান, চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পৌর মেয়র মোঃ নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, পুরাণবাজার ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদার ও চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এএইচএম আহসান উল্লাহ।



আলোচনা পর্ব শেষে চাঁদপুর জেলা শিল্পকলা একাডেমির ব্যবস্থাপনায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়। আলোচনার পূর্বে বাংলাদেশ শিশু একাডেমি চাঁদপুর জেলার আয়োজনে ছোটদের সুন্দর হাতের লেখা, চিত্রাংকন, দেশাত্মবোধক সংগীত ও কবিতা আবৃত্তি প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন প্রধান অতিথিসহ অন্য অতিথিবৃন্দ।



শিশু একাডেমির আয়োজনে বিভিন্ন প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণের সার্বিক দায়িত্বে ছিলেন জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা কাউছার আহমেদ।



এদিকে আলোচনা সভার পূর্বে মাতৃভাষা আন্দোলনে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভূমিকা কী ছিলো তার উপর 'ভাষা আন্দোলনে বঙ্গবন্ধু' শিরোনামে পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশন উপস্থাপন করেন পুরাণবাজার ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদার।



 


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
১৩৫৭৩৭
পুরোন সংখ্যা