চাঁদপুর, সোমবার ০৬ এপ্রিল ২০২০, ২৩ চৈত্র ১৪২৬, ১১ শাবান ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • চাঁদপুর ৫ (হাজীগঞ্জ-শাহরাস্তি) নির্বাচিত এলাকার সাবেক সাংসদ এম এ মতিন (৮৫) মঙ্গলবার সকালে রাজধানীর একটি হাসপাতালে ইন্তেকাল করেছেন। (ইন্নালিল্লাহে....রাজিউন)।
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৯-সূরা হাক্কা :


৫২ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী


১৬। এবং আকাশ বিদীর্ণ হইয়া যাইবে আর সেই দিন উহা বিশ্লিষ্ট হইয়া পরিবে।


১৭। ফিরিশ্তাগণ আকাশের প্রান্তদেশে থাকিবে এবং সেই দিন আটজন ফিরিশ্তা তোমার প্রতিপালকের আরশকে ধারণ করিবে তাহাদের ঊধর্ে্ব।


 


assets/data_files/web

বেদনা হচ্ছে পাপের শাস্তি।


-বুদ্ধদেব।


 


 


স্বভাবে নম্রতা অর্জন কর।


 


চাঁদপুরে করোনা মোকাবেলায় প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতা অব্যাহত
মিজানুর রহমান ॥
০৬ এপ্রিল, ২০২০ ১৫:৪৫:২০
প্রিন্টঅ-অ+


 চাঁদপুরে করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) মোকাবেলায় জেলা প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ব্যাপক তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। গতকালও শহরের সব রাস্তায়, আঞ্চলিক সড়কগুলোতে এবং উপজেলা ও ইউনিয়নের হাট বাজারে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর টহল জোরদারভাবে চলেছে। সেনা টহলসহ পুলিশের তৎপরতায় রাস্তা ও হাট বাজারে লোকসমাগম ও ছোটখাটো গণপরিবহন অনেকটা কমেছে। এর পাশাপাশি প্রশাসন কর্তৃক বাজার মনিটরিংও করা হয়েছে।

এ কর্মযজ্ঞে মাঠে ছিলো সেনাবাহিনী, ম্যাজিস্ট্রেট, পুলিশ ও আনসার বাহিনীর সদস্যরা।

সরজমিনে দেখা গেছে, দিনব্যাপী এই তৎপরতায় পুলিশের থানা, ডিবি এবং ট্রাফিক বিভাগ সকাল থেকেই সাঁড়াশি অভিযান চালিয়েছে। সাথে ছিলেন ম্যাজিস্ট্রেট এবং একটি সেনাবাহিনীর টিম। যার মধ্যে তিনজন ম্যাজিস্ট্রেটের সাথে ছিলো চাঁদপুর সদর মডেল থানার তিনটি টিম। এই টিমগুলো ইউনিয়ন পর্যায়ে গিয়ে কঠোরভাবে আইন প্রয়োগ করেছে।

সেনা টহল ও মোবাইল কোর্টের অভিযানের সময় হ্যান্ড মাইকে করোনা ভাইরাস বিষয়ে জনগণকে সর্তক করা হয়।

এ সময় প্রশাসন থেকে বলা হয়, প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে বের হবেন না। বাইরে বের হলে মানুষের ভিড় এড়িয়ে চলুন। যারা করোনা ভাইরাস আক্রান্ত হয়ে বিদেশ থেকে ফিরেছেন, তারা ১৪দিন সম্পূর্ণ আলাদা থাকুন। ঘন ঘন সাবান-পানি দিয়ে হাত ধুতে হবে। হাঁচি-কাশি দিতে হলে রুমাল বা টিস্যু পেপার দিয়ে নাক-মুখ ঢেকে নিন। যেখানে-সেখানে কফ-থুথু ফেলবেন না। করমর্দন বা কোলাকুলি থেকে বিরত থাকুন। মুসলমান ভাইয়েরা ঘরেই নামাজ আদায় করুন। অন্যান্য ধর্মাবলম্বীরাও ঘরে বসে প্রার্থনা করুন। পরিবার, পাড়া-প্রতিবেশী এবং দেশের মানুষের জীবন রক্ষার্থে এসব পরামর্শ মেনে চলা প্রয়োজন। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন, নিরাপদ থাকুন।


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
৪৬৯০৪৩০
পুরোন সংখ্যা