চাঁদপুর, বৃহস্পতিবার ০৯ এপ্রিল ২০২০, ২৬ চৈত্র ১৪২৬, ১৪ শাবান ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • চাঁদপুরে আরো ১২ জনের করোনা শনাক্ত, মোট আক্রান্ত ১৫৯
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৯-সূরা হাক্কা :


৫২ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী


১৬। এবং আকাশ বিদীর্ণ হইয়া যাইবে আর সেই দিন উহা বিশ্লিষ্ট হইয়া পরিবে।


১৭। ফিরিশ্তাগণ আকাশের প্রান্তদেশে থাকিবে এবং সেই দিন আটজন ফিরিশ্তা তোমার প্রতিপালকের আরশকে ধারণ করিবে তাহাদের ঊধর্ে্ব।


 


assets/data_files/web

বেদনা হচ্ছে পাপের শাস্তি।


-বুদ্ধদেব।


 


 


স্বভাবে নম্রতা অর্জন কর।


 


চাঁদপুর ট্রানজিট পয়েন্ট হওয়ায় শহরবাসী আতঙ্কিত
বিমল চৌধুরী ॥
০৯ এপ্রিল, ২০২০ ১৬:১২:২৬
প্রিন্টঅ-অ+


 বর্তমান সময়ে বিশ^ব্যাপী আতঙ্কের নাম করোনা ভাইরাস। এ ভাইরাস থেকে মুক্তির উপায় বের না হওয়ায় এখন পর্যন্ত প্রাণ হারিয়েছেন কয়েক হাজার মানুষ। যাদের তালিকায় রয়েছে প্রভাবশালী থেকে শুরু করে হতদরিদ্র পরিবারের মানুষজন। কেউই মুক্তি পাচ্ছে না এর অদৃশ্য ছোঁয়া থেকে, সারাবিশ^ আজ দিশেহারা এ ভাইরাস প্রতিরোধ করতে। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই করা সম্ভব হচ্ছে না। তারপরও থেমে নেই তাদের প্রচেষ্টা, হয়তো একদিন হঠাৎ করেই কোনো দেশ ঘোষণা দিবে আমরা পেরেছি করোনা প্রতিষেধক তৈরি করতে। তার আগে আমাদের বেঁচে থাকতে হবে। আর এ বেঁচে থাকার জন্যে, মানুষের নিরাপত্তার লক্ষ্যে বিশে^র অন্যান্য দেশের ন্যায় বাংলাদেশও গ্রহণ করেছে নানা নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা। যেখানেই করোনায় আক্রান্ত লোকের সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে সে স্থান বা শহরকে করা হচ্ছে লকডাউন, কঠিন নিরাপত্তার বলয়ে ওই এলাকার মানুষদের চলাফেরায় বাধা ধরা নিয়ম বেধে দিচ্ছেন প্রশাসন তাদের নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে। ইতিমধ্যে জেলা শহর চাঁদপুরের সাথে সবচেয়ে বেশি যোগাযোগ সম্পন্ন নারায়ণগঞ্জ ও শরীয়তপুরে করোনা ভাইরাসের অস্তিত্ব খুজে পাওয়ায় চাঁদপুর শহরবাসীর মাঝে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।

করোনা ভাইরাসের কারণে ইতিপূর্বে গণপরিবহন বাস, লঞ্চ চলাচল বন্ধ করে দেয়া হলেও নারায়ণগঞ্জসহ শরীয়তপুরের মানুষজন বিভিন্ন উপায়ে নদী পার হয়ে চাঁদপুর হয়ে দেশের বিভিন্ন স্থানে তাদের যাতায়াত কম-বেশি অব্যাহত রেখেছেন। নারায়ণগঞ্জ ও শরীয়তপুরে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ার পর গত ৬ এপ্রিল জেলা পুলিশ প্রশাসন নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে শরীয়তপুর রূটের যাত্রী ও পণ্যবাহী ট্রলার যাতায়াত পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত বন্ধ রাখার ঘোষণা দিয়েছেন। এ ঘোষণার পরও শহরবাসীর আতঙ্ক কাটছে না। তারা মনে করেন যে, কোনো উপায়ে পাশর্^বর্তী নারায়ণগঞ্জ ও শরীয়তপুরসহ এ সকল স্থান থেকে মানুষজন চাঁদপুরে আসতে পারেন। চাঁদপুর এখনো ভালো অবস্থানে থাকায় নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে ওই সকল এলাকার মানুষ চাঁদপুরে অবস্থানরত তাদের আত্মীয়-স্বজনের বাসা বাড়িতে অবস্থান নিতে পারে। তাই তা প্রতিরোধে বর্তমান সময়ে যাতে চাঁদপুরের কোনো বাসা-বাড়িতে আত্মীয় বা অপরিচিত ব্যাক্তিদের উপস্থিতি সম্পর্কে পুলিশ প্রশাসনকে অবহিত করা হয় এ ব্যাপারে নির্দেশনা প্রদান করার জন্য প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন সচেতন মানুষ।

 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৪৯২০৭৬৪
পুরোন সংখ্যা