চাঁদপুর, বৃহস্পতিবার ৬ আগস্ট ২০২০, ২২ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৫ জিলহজ ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৭২-সূরা জিন্ন্


২৮ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী


২৪। যখন উহারা প্রতিশ্রুত শাস্তি প্রত্যক্ষ করিবে, বুঝিতে পারিবে, কে সাহায্যকারীর দিক দিয়া দুর্বল এবং কে সংখ্যায় স্বল্প।


২৫। বল, 'আমি জানি না তোমাদিগকে যে প্রতিশ্রুতি দেওয়া হইয়াছে তাহা কি আসন্ন, না আমার প্রতিপালক ইহার জন্য কোন দীর্ঘ মেয়াদ স্থির করিবেন।'


 


 


ভিক্ষাবৃত্তি পতিতাবৃত্তির চেয়েও খারাপ। -লেলিন।


 


দোলনা থেকে কবর পর্যন্ত জ্ঞানচর্চায় নিজেকে উৎসর্গ করো।


 


 


 


 


 


 


 


 


ফটো গ্যালারি
মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক কবিরুল ইসলামের ইন্তেকাল
শাহরাস্তি জুড়ে শোকের ছায়া
মঈনুল ইসলাম কাজল
০৬ আগস্ট, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক, চাঁদপুর কণ্ঠ বিতর্ক ফাউন্ডেশন (সিকেডিএফ)-এর শাহরাস্তি উপজেলা শাখার সভাপতি, মেহের ডিগ্রি কলেজের শিক্ষক পরিষদের সাবেক সম্পাদক, কলেজের সাবেক শিক্ষক প্রতিনিধি, কলেজ শিক্ষক সমিতি উপজেলা শাখার সদস্য, দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠের প্রধান সম্পাদক কাজী শাহাদাতের ছোট ভগি্নপতি, সকলের পরিচিত, শিক্ষার্থীদের শ্রদ্ধাভাজন শিক্ষক কবিরুল ইসলাম মজুমদার ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না...রাজেউন)। গত ৩১ জুলাই শুক্রবার রাত ১১টায় চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তিনি ক'দিন ধরে জ্বর-শ্বাসকষ্ট ও ডায়াবেটিসে ভুগছিলেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিলো ৫০ বছর। তাঁর স্ত্রী কাজী রাজিয়া বেগম শাহরাস্তি সরকারি বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষিকা। মৃত্যুকালে তিনি ১ ছেলে ও ১ মেয়েসহ বহু আত্মীয়স্বজন, গুণগ্রাহী ও শুভাকাঙ্ক্ষী রেখে গেছেন। তাঁর মৃত্যুর সংবাদ শোনার পর উপজেলাজুড়ে শোকের ছায়া নেমে আসে। বিভিন্ন মহল ও সংগঠন তাঁর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছে। হঠৎ করে পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে কবিরুল ইসলাম মজুমদার ঈদের আগের দিন রাতে মৃত্যুবরণ করায় অনেকেই শোকে মুহ্যমান হয়ে পড়েন।



কবিরুল ইসলামের বাড়ি শাহরাস্তি উপজেলার মেহের দক্ষিণ ইউনিয়নের মালরা গ্রামে। তিনি ও তাঁর স্ত্রী পৌর এলাকায় শিক্ষকতা পেশায় নিয়োজিত থাকায় পরিবার নিয়ে মেহের কালীবাড়ি এলাকায় বসবাস করতেন। করোনাকালীন তিনি বেশির ভাগ সময় বাসায় অবস্থান করছিলেন। সুযোগ পেলেই তিনি কলেজে ছুটে যেতেন। বেশ ক'দিন তিনি শারীরিকভাবে অসুস্থ বোধ করলেও তা নিজের মধ্যে চেপে রাখেন। তাঁর মৃত্যুর আগের ৫/৬ দিন থেকে তিনি তীব্র জ্বরে ভুগছিলেন। এর সাথে পাল্লা দিয়ে বাড়তে থাকে ডায়াবেটিস। গত ৩১ জুলাই শুক্রবার সকালে তিনি করোনা পরীক্ষার জন্যে চেষ্টা করেন। এরপর বেলা সাড়ে তিনটার দিকে শারীরিকভাবে ভীষণ অসুস্থ বোধ করলে তাঁকে চাঁদপুর প্রেরণ করা হয়। তাঁকে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে হাই ফ্লো অঙ্েিজন দেয়া হয়। কিন্তু তাঁর অবস্থার অবনতি ঘটলে তাঁকে ঢাকা নেয়ার প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়। সেজন্যে তাঁকে অ্যাম্বুলেন্সে তোলা হয়। অ্যাম্বুলেন্সে তোলার পরই তিনি সবার চোখের সামনে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। করোনায় তিনি প্রাণ হারিয়েছেন বলে কর্মরত চিকিৎসকরা জানান।



রাতেই সকল প্রকার স্বাস্থ্যবিধি মেনে ইসলামী আন্দোলনের সদস্যদের সহযোগিতায় তাঁকে মালরা গ্রামের পারিবারিক গোরস্থানে দাফন করা হয়। রাত সাড়ে তিনটায় মালরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে মরহুমের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরিবারের সদস্যদের পাশাপাশি জানাজায় অংশ নেন শাহরাস্তি প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মঈনুল ইসলাম কাজল ও যুগ্ম সম্পাদক ফয়েজ আহমেদ।



মেহের ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ মিজানুর রহমান জানান, কবিরুল ইসলাম মজুমদার ১৯৯৩ সালে মেহের কলেজে যোগদান করেন। তিনি অত্যন্ত বিচক্ষণ ব্যক্তি ছিলেন। কলেজের জন্যে তিনি ছিলেন একজন নিবেদিতপ্রাণ। কলেজের সার্বিক উন্নয়নে তাঁর সহযোগিতা অপরিসীম।



মেহের ডিগ্রি কলেজ শিক্ষকদের কবর জেয়ারত ও শোক প্রকাশ



কবিরুল ইসলাম মজুমদারের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন মেহের ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ মিজানুর রহমান। তিনি শোক প্রকাশ করে বলেন, তাঁর মৃত্যুতে কলেজ একজন অভিজ্ঞ শিক্ষককে হারালো, যে ক্ষতি অপূরণীয়। অসময়ে তিনি আমাদের ছেড়ে চলে যাবেন, তা ভাবতেই পারিনি। আমরা তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করছি এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি। গত ৪ জুলাই কলেজের অধ্যক্ষের নেতৃত্বে শিক্ষকবৃন্দ কবিরুল ইসলামের কবর জেয়ারত করেন।



চাঁদপুর কণ্ঠ বিতর্ক ফাউন্ডেশনের শোক



শাহরাস্তি উপজেলা বিতর্ক ফাউন্ডেশনের সভাপতি, মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক কবিরুল ইসলাম মজুমদারের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছে চাঁদপুর কণ্ঠ বিতর্ক ফাউন্ডেশন। তাঁর হাত ধরেই উপজেলাজুড়ে বিতর্কের জোয়ার সৃষ্টি হয়। তাঁর মৃত্যুতে বিতর্ক আন্দোলনের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। মহান আল্লাহর দরবারে তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করছি ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন চাঁদপুর বিতর্ক ফাউন্ডেশনের সভাপতি কাজী শাহাদাতসহ সংগঠনের অন্যরা।



শাহরস্তি উপজেলা বিতর্ক ফাউন্ডেশনের শোক



শাহরাস্তি উপজেলা বিতর্ক ফাউন্ডেশনের সভাপতি, মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক কবিরুল ইসলাম মজুমদারের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছে শাহরাস্তি উপজেলা বিতর্ক ফাউন্ডেশন। ফাউন্ডেশনের সিনিয়র সহ-সভাপতি নূরুন্নবী রবিন চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক মঈনুল ইসলাম কাজল জানান, কবিরুল ইসলাম মজুমদারের হাত ধরে শাহরাস্তি বিতর্ক ফাউন্ডেশন একটি সুসংগঠিত সংগঠন হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে। তাঁর হাত ধরেই উপজেলাজুড়ে বিতর্কের জোয়ার সৃষ্টি হয়। তাঁর মৃত্যুতে বিতর্ক আন্দোলনের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। মহান আল্লাহর দরবারে তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করছি ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।



সূচিপাড়া ডিগ্রি কলেজের শোক



মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক কবিরুল ইসলাম মজুমদারের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন সূচিপাড়া ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ হুমায়ূন কবির ভঁূইয়া। তিনি মরহুমের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করে বলেন, তিনি একজন শিক্ষকপ্রেমী ব্যক্তি ছিলেন। শিক্ষকদের যে কোনো সমস্যায় তিনি অগ্রণী ভূমিকা পালন করতেন। তাঁর মৃত্যুতে শিক্ষকসমাজের অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে। আমরা তাঁর আত্মার শান্তি ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।



শাহরাস্তি উপজেলা কলেজ শিক্ষক সমিতির শোক



মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক কবিরুল ইসলাম মজুমদারের মৃত্যুতে গভীর দুঃখ ও শোক প্রকাশ করেছে শাহরাস্তি উপজেলা কলেজ শিক্ষক সমিতি। কলেজ শিক্ষক সমিতির জেলা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মোঃ আবুল কালাম কবিরুল ইসলামের মৃত্যুতে কলেজ শিক্ষক সমিতির পক্ষে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, কবিরুল ইসলাম ছিলেন একজন দক্ষ শিক্ষক ও সাংগঠনিক ব্যক্তি। তিনি অনেক দিকনির্দেশনা-মতামত দিয়ে শিক্ষক সমিতিকে সহায়তা করতেন। তাঁর মৃত্যুতে শিক্ষক সমিতি গভীরভাবে শোকাহত।



শাহরাস্তি প্রেসক্লাবের শোক



মেহের ডিগ্রি কলেজের সিনিয়র শিক্ষক, শাহরাস্তি উপজেলা বিতর্ক ফাউন্ডেশনের সভাপতি কবিরুল ইসলাম মজুমদারে মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছে শাহরাস্তি প্রেসক্লাব। প্রেসক্লাবের সভাপতি কাজী হুমায়ুন কবির বলেন, কবিরুল ইসলাম মজুমদার পেশায় একজন শিক্ষক হলেও তিনি ছিলেন সাংবাদিকবান্ধব। সাংবাদিক ও প্রেসক্লাবের যে কোনো সমস্যায় তিনি হাজির হতেন এবং সাংবাদিকদের সাথে তাঁর নিবিড় সম্পর্ক ছিলো। তাঁর মৃত্যুতে শাহরাস্তি প্রেসক্লাব গভীরভাবে শোকাহত।



 



 


এই পাতার আরো খবর -
করোনা পরিস্থিতি
বাংলাদেশ বিশ্ব
আক্রান্ত ৩,৩৯,৩৩২ ২,৯২,০১,৬৮৫
সুস্থ ২,৪৩,১৫৫ ২,১০,৩৫,৯২৬
মৃত্যু ৪,৭৫৯ ৯,২৮,৬৮৬
দেশ ২১৩
সূত্র: আইইডিসিআর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
আজকের পাঠকসংখ্যা
২৯৪০১৭
পুরোন সংখ্যা