চাঁদপুর, বৃহস্পতিবার ৬ আগস্ট ২০২০, ২২ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৫ জিলহজ ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৭২-সূরা জিন্ন্


২৮ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী


২৪। যখন উহারা প্রতিশ্রুত শাস্তি প্রত্যক্ষ করিবে, বুঝিতে পারিবে, কে সাহায্যকারীর দিক দিয়া দুর্বল এবং কে সংখ্যায় স্বল্প।


২৫। বল, 'আমি জানি না তোমাদিগকে যে প্রতিশ্রুতি দেওয়া হইয়াছে তাহা কি আসন্ন, না আমার প্রতিপালক ইহার জন্য কোন দীর্ঘ মেয়াদ স্থির করিবেন।'


 


 


ভিক্ষাবৃত্তি পতিতাবৃত্তির চেয়েও খারাপ। -লেলিন।


 


দোলনা থেকে কবর পর্যন্ত জ্ঞানচর্চায় নিজেকে উৎসর্গ করো।


 


 


 


 


 


 


 


 


ফটো গ্যালারি
শিক্ষামন্ত্রীর বিরুদ্ধে অপপ্রচার : আটক ফরক্কাবাদ কলেজের ৩ শিক্ষক বরখাস্ত
চাঁদপুর কণ্ঠ রিপোর্ট
০৬ আগস্ট, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনিসহ সরকারি বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা ও গণ্যমান্যদের বিরুদ্ধে ফেসবুকে ফেক আইডির মাধ্যমে অপপ্রচারের দায়ে গ্রেফতার হওয়া ৩ শিক্ষককে বহিস্কার করা হয়েছে। এই তিন শিক্ষক হচ্ছেন চাঁদপুর সদর উপজেলার বালিয়া ইউনিয়নস্থ ফরাক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজের। তিনজনের মধ্যে আইসিটি শিক্ষক (প্রভাষক) মোঃ নোমান ছিদ্দিকী এবং ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের প্রভাষক মোঃ জাহাঙ্গীর হোসাইনকে সাময়িকভাবে এবং ইংরেজি (খ-কালীন) প্রভাষক এবিএম আনিছুর রহমানকে স্থায়ীভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে। কলেজের পরিচালনা পর্ষদ কর্তৃক গঠিত তদন্ত কমিটির সুপারিশ মতে এ ব্যবস্থা নিলো কলেজ গভর্নিংবডি। বর্তমানে এরা জেলহাজতে রয়েছে।



গতকাল ৫ আগস্ট বুধবার কলেজের পক্ষ থেকে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনিসহ ফরক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজ প্রতিষ্ঠাতা, সভাপতি ও গণ্যমান্যদের বিরুদ্ধে ফেসবুকে ফেক আইডির মাধ্যমে দীর্ঘদিন যাবৎ অপপ্রচারের অভিযোগে গত ১৯ জুলাই ফরক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজের ৩ জন শিক্ষককে পুলিশ কলেজের আইটি বিভাগ থেকে গ্রেফতার করে। এ ঘটনার প্রেক্ষিতে কলেজের পরিচালনা পর্ষদ গত ২২ জুলাই সভাপতির বাসভবনে সন্ধ্যায় এক জরুরি সভার মাধ্যমে ৩ সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে। উক্ত কমিটি সরজমিনে তদন্তের মাধ্যমে জানতে পারে যে- এলাকার লোকজনের আটককৃতদের ব্যাপারে বিরূপ ধারণা রয়েছে। জাতীয় ও স্থানীয় পত্রিকায় ঘটনা প্রকাশের কারণে কলেজের ভাবমূর্তি ও সুনাম মারাত্মকভাবে ক্ষুণ্ন হয়। এ শিক্ষকগণের বিরুদ্ধে পূর্বে ফৌজদারী মামলাও রয়েছে। তদন্ত কমিটির প্রতিবেদন ও সুপারিশের প্রেক্ষিতে কলেজ গভর্নিংবডির সিদ্ধান্তক্রমে আটককৃত মোঃ নোমান ছিদ্দিকী ও মোঃ জাহাঙ্গীর হোসাইনকে সাময়িক এবং এবিএম আনিছুর রহমান (খ-কালীন)-কে স্থায়ীভাবে বরখাস্ত করা হয়।



এ বিষয়ে ফরক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজ অধ্যক্ষ ড. হাছান খান বলেন, এবিএম আনিছুর রহমান মূলত আমাদের শিক্ষক না। তিনি ফরক্কাবাদ সিনিয়র মাদ্রাসার শিক্ষক। তিনি আমাদের এখানে খ-কালীন শিক্ষক হিসেবে ছিলেন। মাঝেমধ্যে দু' একটি ক্লাস নিতেন। তিনি জানান, তদন্ত কমিটি গত ৩ আগস্ট তদন্ত প্রতিবেদন দেয়। এরপর ৪ আগস্ট অভিযুক্ত ৩ শিক্ষকে বহিস্কার করা হয়।



উল্লেখ্য, শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপিসহ বিশিষ্টজনদের নিয়ে গুজব ছড়ানো ও অপপ্রচারের অভিযোগে ওই দুই কলেজ শিক্ষক ও এক মাদ্রাসা শিক্ষককে গত ১৯ জুলাই গ্রেফতার করে চাঁদপুর সদর মডেল থানা পুলিশ। গ্রেফতারের পরদিন ২০ জুলাই প্রেসব্রিফিংয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) জাহেদ পারভেজ চৌধুরী বলেন, ফেসবুক আইডি থেকে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনিসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তির নামে গুজব এবং অপপ্রচার ছড়ানোয় সে এলাকারই আঃ হান্নান নামের আরেক শিক্ষক তাদের বিরুদ্ধে থানায় জিডি করেন। জিডি অনুসন্ধান করে এর সত্যতা পাওয়ায় আমরা এটিকে মামলা হিসেবে নেই। এরপর আমাদের তদন্তকারী কর্মকর্তা নিরবচ্ছিন্নভাবে তদন্ত কাজ চালিয়ে যান। এক পর্যায়ে কিছু ব্যক্তি এবং একটি প্রতিষ্ঠানকে সন্দেহ হয়। সন্দেহের ভিত্তিতে সার্চ ওয়ারেন্টের জন্যে আমরা আদালতে একটি আবেদন দেই। আদালতের সার্চ ওয়ারেন্ট পেয়ে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে ১৯ জুলাই রোববার রাতে ফরক্কাবাদ ডিগ্রি কলেজের আইটি সেকশনে অভিযান পরিচালনা করা হয়। গোয়েন্দা তথ্যের সত্যতা অনুযায়ী ওই সময় কলেজ বন্ধ থাকা সত্ত্বেও সেখানে আমরা ওই তিন শিক্ষককে পাই।



তিনি বলেন, ওই কলেজের ইসলামের ইতিহাসের প্রভাষক জাহাঙ্গীর, কলেজের আইসিটি শিক্ষক মোঃ নোমান সিদ্দিকী এবং পার্শ্ববর্তী মাদ্রাসা শিক্ষক এবিএম আনিছুর রহমানকে 'জয় আহমেদ' নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে এ ধরনের কার্যক্রম চালানোর সময় হাতেনাতে আটক করা হয়।



 


এই পাতার আরো খবর -
করোনা পরিস্থিতি
বাংলাদেশ বিশ্ব
আক্রান্ত ৩,৩৯,৩৩২ ২,৯২,০১,৬৮৫
সুস্থ ২,৪৩,১৫৫ ২,১০,৩৫,৯২৬
মৃত্যু ৪,৭৫৯ ৯,২৮,৬৮৬
দেশ ২১৩
সূত্র: আইইডিসিআর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
আজকের পাঠকসংখ্যা
৩৩৯১০৪
পুরোন সংখ্যা