চাঁদপুর। সোমবার ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭। ৪ পৌষ ১৪২৪। ২৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯
redcricent
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • হাজীগঞ্জে পানিতে ডুবে দুই ভাইয়ের মৃত্যু
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৩৩-সূরা আহ্যাব

৭৩ আয়াত, ৯ রুকু, মাদানী

পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।

 ২৯। আর যদি তোমরা কামনা কর আল্লাহ্, তাঁহার রাসূল ও আখিরাত, তবে তোমাদের মধ্যে যাহারা সৎকর্মশীল আল্লাহ্ তাহাদের জন্য মহাপ্রতিদান প্রস্তুত রাখিয়াছেন।'

৩০। হে নবী-পতিœগণ!  যে কাজ স্পষ্টত অশ্লীল, তোমাদের মধ্যে কেহ তাহা করিলে তাহাকে দ্বিগুণ শাস্তি দেওয়া হইবে এবং ইহা আল্লাহর জন্য সহজ।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


মন যখন অন্যত্র, চোখ তখন বন্ধ।  

-পাবলিয়াস সাইরাস।


মুসলমানগণের মধ্যে যার স্বভাব সবচেয়ে ভালো সে-ই সর্বাপেক্ষা ভালো ব্যবহার করে, তারাই তোমাদের মধ্যে সর্বাপেক্ষা শ্রেষ্ঠ  ব্যক্তি।


ফটো গ্যালারি
বিজয় দিবসে চাঁদপুর জেলা বিএনপির আলোচনা সভায় বক্তারা
জনতার হৃদয় থেকে শহীদ জিয়ার স্বাধীনতার ঘোষণা কেউ মুছে ফেলতে পারবে না
মিজানুর রহমান
১৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে ১৬ ডিসেম্বর সকালে চাঁদপুর শহরে মুক্তিযুদ্ধের স্মারক ভাস্কর্য 'অঙ্গীকার' বেদীতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে চাঁদপুর জেলা বিএনপি। এদিন সকাল ৭টায় মিছিল নিয়ে নেতা-কর্মীরা স্বাধীনতা যুদ্ধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে এ পুষ্পার্ঘ অর্পণ করেন। পরে দলীয় কার্যালয়ের সামনে বিজয় দিবসের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বিএনপি কেন্দ্রীয় কমিটির প্রবাসীকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক ও চাঁদপুর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শেখ ফরিদ আহমেদ মানিক।



তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, আমাদের স্বাধীনতার ঘোষক হচ্ছেন শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান। হাইকোর্ট-সুপ্রীমকোর্টের মাধ্যমে যে রায়ই আসুক না কেন, বাংলাদেশের লক্ষ-কোটি জনতার হৃদয় থেকে শহীদ জিয়ার স্বাধীনতার ঘোষণা কেউ মুছে ফেলতে পারবে না। ইতিহাস বিকৃতি যতোই করুক, প্রজন্মের কাছ থেকে শহীদ জিয়াকে সরিয়ে রাখা যাবে না। তিনি বলেন, সরকার বিএনপিকে দুর্বল করার জন্যে এখন জিয়া পরিবারের নামে অপপ্রচার করছে। বিদেশে টাকা আছে বলে মিথ্যা কথা বলছে। এসবের প্রমাণ করতে না পারলে সরকারকে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। তিনি দলীয় কর্মসূচিতে অংশগ্রহণকারী নেতা-কর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়ে ১৮ ডিসেম্বর কেন্দ্র ঘোষিত জেলা বিএনপির বিক্ষোভ কর্মসূচিতে উপস্থিত থাকার জন্যে নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান।



জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক মুনির চৌধুরীর পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক অ্যাডঃ সলিম উল্যা সেলিম, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডঃ মিজানুর রহমান, জেলা বিএনপির সাবেক যুগ্ম সম্পাদক অ্যাডঃ জহির উদ্দিন বাবর, সদর উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডঃ শামছুল ইসলাম মন্টু, জেলা যুবদলের সভাপতি শাহজালাল মিশন, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক অ্যাডঃ জাহাঙ্গীর হোসেন খান, জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক আফজাল হোসেন, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব হযরত আলী, জেলা শ্রমিক দলের সভাপতি নজরুল ইসলাম বাদল, জেলা কৃষক দলের সভাপতি এনায়েত উল্যাহ খোকন, জেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক ফয়সাল আহমেদ বাহার প্রমুখ।



এদিন ভোরে দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে জেলা বিএনপির উদ্যোগে বিজয় দিবসের কর্মসূচি শুরু হয়। পরে মিছিল নিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন এবং আলোচনা সভায় জেলা বিএনপি, ছাত্রদল, যুবদল, মহিলা দলসহ অঙ্গ-সংগঠনের অসংখ্য নেতা-কর্মী উপস্থিত ছিলেন।



 


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
৫৪৯২৪৯
পুরোন সংখ্যা