চাঁদপুর, বুধবার ২৬ জুন ২০১৯, ১২ আষাঢ় ১৪২৬, ২২ শাওয়াল ১৪৪০
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫১-সূরা সূরা তূর

৪৯ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী

পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।

১৯। ‘তোমরা যাহা করিতে তাহার প্রতিফল স্বরূপ তোমরা তৃপ্তির সহিত পানাহার করিতে থাক।’

২০। তাহারা বসিবে শ্রেণীবদ্ধভাবে সজ্জিত আসনে হেলান দিয়া; আমি তাহাদের মিলন ঘটাইব আয়তলোচনা হূূরের সংগে;


জাতীয় সংসদ আদর্শ লোকজনের এক বিরাট সমাবেশ ব্যতীত আর কিছু নয়।

 -ওয়াল্টার বেজইট।


দুষ্কর্মের প্রকৃত অনুতাপকারী এবং যে কখনো দুষ্কর্ম করেনি-এদের মধ্যে কোন পার্থক্য নেই।


ফটো গ্যালারি
চাঁদপুর নৌ থানার ব্যারাকটি জরাজীর্ণ অবস্থায়
বাদল মজুমদার
২৬ জুন, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর নৌ থানা খুবই জরাজীর্ণ অবস্থায় রয়েছে। বিশেষ করে ব্যারাকটিতে থাকার মোটেই উপযোগী নয়। চাঁদপুরের নৌ সীমানা সকল ধরনের অপরাধ মুক্ত রাখতে এবং চাঁদপুর লঞ্চঘাটের নিরাপত্তা দিতে বন্দরের যাত্রি ছাউনিতে গড়ে ওঠে নৌ থানা। একজন ওসি, ২জন এসআই, ২ জন এএসআই, ১ জন নায়েক ও ১৮জন কনস্টেবলসহ মোট ২৫জন পুলিশ সদস্য ২৪ঘন্টা আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে রাখা তাদের দায়িত্বে। কিন্তু তাদের থাকার ব্যারাকটি খুবই জরাজীর্ণ অবস্থায়। বৃষ্টি হলে টিনের চালার ফুটো দিয়ে পানি পড়ে বিছানা ভিজে যায়। একটু ঝড়ো হাওয়া হলে দরজা জানালা ধরে দাঁড়িয়ে থাকতে হয়। ব্যারাকটির চালে গোটা দশেক আস্তো ইট দেখতে পাওয়া যায়। বাতাসে চাল যেন উড়িয়ে নিয়ে না যায়, সেজন্যে ইটগুলো দেয়া হয়েছে। থানার মুন্সির রুমের দরজা ঘুনে খেয়ে ঝরে পড়ছে। থানার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ রুম থানার সকল নথি ও অস্ত্রাগার রুমটিতে দরজার তালা লাগানো আর না লাগানো একই কথা। অবস্থা দেখে এটাই বলা যায়, যারা নিরাপত্তা দিবে তারাই নিরাপত্তাহীনতায়।



এ ব্যাপারে নৌ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবু তাহের বলেন, এটি নৌ বন্দর কর্তৃপক্ষের অধীনে। বন্দর কর্মকর্তাকে জানানো হয়েছে। তারা বলেছে, নভেম্বর মাসে আধুনিক নৌ বন্দরের কাজ শুরু হবে। কাজ শুরু হলে সমসা থাকবে না। নৌ ও বন্দর কর্মকর্তা আঃ রাজ্জাক বলেন, নৌ থানার টিনের ঘরটি নাজুক অবস্থায় রয়েছে, তা আমরা জানি। অচিরেই আধুনিক নৌ বন্দরের কাজ শুরু হবে, তখন আর সমস্যা থাকবে না।



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
১১৮২৭৩৬
পুরোন সংখ্যা