চাঁদপুর, শুক্রবার ১১ অক্টোবর ২০১৯, ২৬ আশ্বিন ১৪২৬, ১১ সফর ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৬ সূরা-ওয়াকি'আঃ


৯৬ আয়াত, ৩ রুকু, মক্কী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


৮০। ইহা জগৎসমূহের প্রতিপালকের নিকট হইতে অবতীর্ণ।


৮১। তবুও কি তোমরা এই বাণীকে তুচ্ছ গণ্য করিবে?


৮২। এবং তোমরা মিথ্যারোপকেই তোমাদের উপজীব্য করিয়া লইয়াছো!


 


 


 


 


 


assets/data_files/web

হিংসা একটা দরজা বন্ধ করে অন্য দুটো খোলে।


-স্যামুয়েল পালমার।


 


 


নামাজ বেহেশতের চাবি এবং অজু নামাজের চাবি।


 


 


 


ফটো গ্যালারি
শারদীয় দুর্গোৎসবে জীবনদীপের স্বেচ্ছায় রক্তের গ্রুপ নির্ণয় ও রক্তদান
জীবনদীপের সেবামূলক কার্যক্রম সারাদেশে ছড়িয়ে পড়বে
----------------অ্যাডঃ বিনয় ভূষণ মজুমদার
স্টাফ রিপোর্টার
১১ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


শারদীয় দুর্গোৎসব চলাকালে জেলার ফরিদগঞ্জ কড়ৈতলী, বাবুরহাট, পুরাণবাজারসহ বিভিন্ন পূজাম-পে জীবনদীপের ব্যবস্থাপনায় স্বেচ্ছায় রক্তদানসহ রক্তের গ্রুপ নির্ণয় করা হয়েছে।



গত ৬ অক্টোবর দুপুরে পুরাণবাজার দাসপাড়া পূজাম-পে রক্তের গ্রুপ নির্ণয়কালে মানব উন্নয়ন সেবামূলক সংগঠন জীবনদীপের প্রতিষ্ঠাতা অ্যাডঃ বিনয় ভূষণ মজুমদার বলেন, জীবনদীপ প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছে। চেষ্টা করছে মানুষের প্রয়োজনে রক্ত সংগ্রহ করে দিতে। এক সময় মানুষ রক্ত দিতে ভয় পেত, প্রয়োজনীয় রক্তের অভাবে মানুষ মারা যেত। এখন তেমনটি ঘটে না। এখন মানুষ স্বেচ্ছায় রক্ত দান করে। প্রয়োজন শুধু রক্তদাতাদের খুঁজে বের করা। যারা রক্তদান করে তারাই প্রকৃত বন্ধু। অথচ এ সকল স্বেচ্ছায় রক্তদাতাদের আমরা মনে রাখি না। ভুলে যাই তাদের অবদানের কথা। পৃথিবীতে যত দান আছে এর মাঝে সবচেয়ে বড় দান হলো রক্তদান। তাই যাদের রক্ত দেয়ার মত সামর্থ্য আছে তাদের সকলের রক্ত দান করা উচিত। অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো উচিত। জীবনদীপের কর্মীরা আজ সেবামূলক কার্যক্রমের মাধ্যমে এগিয়ে যাচ্ছে। আপনারা জীবনদীপকে রক্তদানে সহায়তা করবেন। আপনাদের সকলের সহযোগিতা পেলে জীবনদীপের সেবামূলক কার্যক্রম সাড়াদেশে ছড়িয়ে পড়বে। যারা স্বেচ্ছায় রক্ত দিয়ে সহযোগিতা করেন তাদের প্রতিও তিনি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।



এ সময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন জীবনদীপের উপদেষ্টা মৃনাল কান্তি দাস, মৃদুল কান্তি দাস, পরিচালক বৈভব মজুমদার, দাসপাড়া মন্দির কমিটির সভাপতি স্বপন কুমার দাস, দাসপাড়া সার্বজনীন পূজা কমিটির সভাপতি প্রদীপ কুমার দাস প্রমুখ। রক্তের গ্রুপ নির্ণয়সহ রক্তসংগ্রহে সহযোগিতা করেন চাঁদপুর ভ্যাকসিন সেন্টারের পরিচালক মুকবুল হোসেনসহ সহকারীগণ।



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৬৬৩৭৮৩
পুরোন সংখ্যা