চাঁদপুর, মঙ্গলবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৫ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • চাঁদপুরে আরো ১২ জনের করোনা শনাক্ত, মোট আক্রান্ত ১৫৯
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৪-সূরা তাগাবুন


১৮ আয়াত, ২ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


৭। কাফিররা ধারণা করে যে, উহারা কখনও পুনরুত্থিত হইবে না। বল, 'নিশ্চয়ই হইবে, আমার প্রতিপালকের শপথ! তোমরা অবশ্যই পুনরুত্থিত হইবে। অতঃপর তোমরা যাহা করিতে তোমাদিগকে সে সম্বন্ধে অবশ্যই অবহিত করা হইবে। ইহা আল্লাহর পক্ষে সহজ।'


 


 


একজন জ্ঞানী এবং ভালো লোক কখনো হতাশায় ভোগে না।


-ক্যারয়িাস ম্যক্সিমাস।





 


 


যারা ধনী কিংবা সবলকায়, তাদের ভিক্ষা করা অনুচিত।


 


 


 


সেইপ-এর আয়োজনে উপজেলা পর্যায়ে অবহিতকরণ কর্মশালা
সকলের সমন্বিত প্রচেষ্টায়ই আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন হয়ে থাকে
------------নূরুল ইসলাম নাজিম দেওয়ান
চাঁদপুর কণ্ঠ রিপোর্ট
১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের ধারা টেকসই করার জন্যে দক্ষ শ্রমিকের সরবরাহ নিশ্চিত করার মাধ্যমে দেশের শিল্পখাতে উৎপাদনশীলতা বাড়ানোর লক্ষ্য নিয়ে ২০১৪ সাল থেকে 'স্কিলস ফর এমপ্লয়মেন্ট ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রাম' (সেইপ) প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে সরকার। সরকারের অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগ এ প্রকল্প বাস্তবায়নের দায়িত্বে রয়েছে। দশ বছরে অর্থাৎ ২০১৪ সাল থেকে ২০২৪ সালের মধ্যে আট লক্ষ জনশক্তি গড়ে তোলার লক্ষ্য নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে সেইপ। এছাড়া এ প্রকল্পের মাধ্যমে প্রশিক্ষণার্থীদের অন্তত ৬০ শতাংশের চাকরির সুযোগ করে দেয়া হচ্ছে।



চাঁদপুরে এই সেইপের কার্যক্রম সম্পর্কে জনগণকে জানান দেয়ার জন্যে উপজেলা পর্যায়ে অবহিতকরণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়। গতকাল সোমবার সকালে চাঁদপুর সদর উপজেলা পরিষদ কমপ্লেঙ্ মিলনায়তনে এ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নূরুল ইসলাম নাজিম দেওয়ান। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, একটি দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের জন্যে সকল ক্ষেত্রে টেকসই উন্নয়ন প্রয়োজন। আর এ টেকসই উন্নয়নের জন্যে দক্ষ জনশক্তি খুবই গুরুত্ব বহন করে। আর দক্ষ জনশক্তি গড়ে তুলতে কারিগরি শিক্ষার বিকল্প নেই। এর গুরুত্ব অনুধাবন করে বাংলাদেশ সরকারের অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগ 'সেইপ' নামে একটি প্রকল্পের দ্বারা দক্ষ শ্রমিক গড়ে তোলার কাজ করে যাচ্ছে। এই প্রকল্পটির কার্যক্রম দেশের সব জায়গায় চালু হওয়া দরকার। এভাবেই সকলের সমন্বিত প্রচেষ্টায় দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন হয়ে থাকে। চাঁদপুরে যে সব কারিগরি প্রতিষ্ঠান রয়েছে, সেগুলো সেইপের সাথে সমন্বয় সাধন করার প্রতি তিনি গুরুত্বারোপ করেন।



চাঁদপুর সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কানিজ ফাতেমা তাঁর বক্তব্যে সেইপের এ কার্যক্রমকে স্বাগত জানিয়ে এ জেলায় এর কার্যক্রম আরো ব্যাপকতার সাথে করার আহ্বান জানান। এছাড়া তিনি তাঁর বক্তব্যে সদর উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ইতিপূর্বে পিছিয়েপড়া জনগোষ্ঠীর জন্যে যে নানা প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে তার একটি সংক্ষিপ্ত চিত্র সভায় তুলে ধরেন।



সভার সঞ্চালক ছিলেন এই প্রকল্পের কো-অর্ডিনেটর মোঃ জিয়াউদ্দিন আহমেদ। আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আবিদা সুলতানা, চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইকরাম চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক এএইচএম আহসান উল্লাহ ও সাবেক সভাপতি গোলাম কিবরিয়া জীবন। এছাড়া আরো বক্তব্য রাখেন রামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আল মামুন পাটওয়ারী, চাঁদপুর সিইআই-এর অধ্যক্ষ মোঃ শাহ আলম প্রমুখ।



 



 


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
৪৯৬৪৯৮২
পুরোন সংখ্যা