চাঁদপুর। মঙ্গলবার ২১ মার্চ ২০১৭। ৭ চৈত্র ১৪২৩। ২১ জমাদিউস সানি ১৪৩৮
kzai
muslim-boys

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

২৭-সূরা নাম্ল 


৯৩ আয়াত, ৭ রুকু, ‘মক্কী’


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


৫৫। ‘তোমরা কি কামতৃপ্তির জন্য নারীকে ছাড়িয়ে পুরুষে উপগত হইবে? তোমরা তো এক অজ্ঞ সম্প্রদায়।’ 


৫৬। উত্তরে তাহার সম্প্রদায় শুধু বলিল, ‘লূত-পরিবারকে তোমাদের জনপদ হইতে বহিস্কৃত কর, ইহারা তো এমন লোক যাহারা পবিত্র সাজিতে চাহে।’  


দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


কলমকে হৃদয়ের জিহ্বা বলা যায়।     -কারভেনটেস।

যে মুসলমান অবৈধ (হারাম) বস্তু হইতে দূরে থাকে ও ভিক্ষাবৃত্তি হইতে দূরে থাকে, যাহার শুধু একটি পরিবার (স্ত্রী), খোদাতায়ালা তাহাকেই ভালোবাসেন।   


ফটো গ্যালারি
শাহরাস্তির পল্লী চিকিৎসক হত্যা মামলার প্রধান ২ আসামী গ্রেফতার
চৌধুরী ইয়াসিন ইকরাম ॥
২১ মার্চ, ২০১৭ ২৩:০২:১৫
প্রিন্টঅ-অ+


শাহরাস্তি উপজেলার বানিয়াচোঁ গ্রামে পল্লী চিকিৎসক আনোয়ার উল্যাহ মিয়াজী হত্যা মামলার প্রধান দুই আসামী আসিফ মিয়াজী (১৮) ও সফিউল আলম (১৪)কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার দুপুরে তাদেরকে চাঁদপুর (শাহরাস্তি) আদালতে হাজির করা হয়। তারা আদালতের বিচারক অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নাজমুন্নাহার বেগমের কাছে ১৬৪ ধারায় খুনের বিবরণ দেন। আসিফ বানিয়াচোঁ গ্রামের মোঃ মফিজুল ইসলাম ও সফিউল একই গ্রামের জামাল হোসেনের ছেলে। স্থানীয় বিদ্যালয়ে আসিফ দশম ও সফিউল অস্টম শ্রেণীতে পড়ে।

এর আগে সোমবার (২০ মার্চ) দিবাগত রাত দেড়টায় শাহরাস্তি থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে আসিফ ও সফিউলকে তাদের বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে।

শাহরাস্তি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ নুর হোসেন মামুন জানান, অভিযুক্ত আসিফ ও সফিউল আদালতে জবানবন্দীতে বলেন, তারা কয়েক বন্ধু ক্রিকেট খেলা নিয়ে নগদ টাকা বাজি (জুয়া) ধরেন। এতে করে আসিফ ও সফিউল ৭ হাজার ২শ’ টাকা ঋণগ্রস্ত হয়ে পড়েন। ওই টাকা পরিশোধ করার জন্য ঘটনার দিন ভোর রাতে ওই চিকিৎসকের ঘরে প্রবেশ করেন। চিকিৎসক তাদেরকে দেখে ফেলার কারণে তারা তাকে প্রথম গলা চেপে ধরেন। তিনি অজ্ঞান হয়ে পড়লে ঘর থেকে বাইরে এনে পাশে পড়ে থাকা ধারালো বোতলের কাঁচ দিয়ে গলাকেটে হত্যা করে। তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশে দিয়েছে আদালত।

পল্লী চিকিৎসক আনোয়ার উল্যাহ মিয়াজী নিহত হন ২৭ জানুয়ারি ভোর রাতে। পরদিন ২৮ জানুয়ারি তার ছোট ছেলে মোঃ মোশাররফ হোসেন বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামী করে মামলা দায়ের করেন। (শাহরাস্তি থানায় মামলা নং-১৮)।

 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৮৪৩০৪৪
পুরোন সংখ্যা