চাঁদপুর, রোববার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১০ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৮ জমাদিউস সানি ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৪-সূরা তাগাবুন


১৮ আয়াত, ২ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


 


১১। আল্লাহর অনুমতি ব্যতিরেকে কোন বিপদই আপতিত হয় না এবং যে আল্লাহকে বিশ্বাস করে তিনি তাহার অন্তরকে সুপথে পরিচালিত করেন। আল্লাহ সর্ববিষয়ে সম্যক অবহিত।


 


 


 


assets/data_files/web

আমার নিজের সৃষ্টিকে আমি সবচেয়ে ভালোবাসি।


-ফার্গসান্স।


 


 


 


যে শিক্ষা গ্রহণ করে তার মৃত্যু নেই।


 


 


ফটো গ্যালারি
মালয়েশিয়ায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন
শাহাদাত হোসেন মালয়েশিয়া থেকে
২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ১২:৫০:৪২
প্রিন্টঅ-অ+


বাংলাদেশ হাইকমিশন, কুয়ালালামপুর মালয়েশিয়ায়  যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস 



পালন করা হয় । আজ একুশে ফেব্রুয়ারি শুক্রবার সকাল সাড়ে ৮টায় রাজধানী কুয়ালালামপুরে দূতাবাস কার্যালয়ে অনুষ্ঠানের শুরুতে জাতীয় পতাকা   অর্ধনমিতকরণ করেন হাইকমিশনার মহ. শহীদুল ইসলাম। হাই কমিশন চত্ত্বরে নির্মিত অস্থায়ী শহীদ মিনারে বাংলাদেশ হাইকমিশন এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও প্রবাসী সংগঠন পুষ্পাঞ্জলি অর্পন  ভাষা শহীদদের স্মরণে নিরবতা পালন এবং দেশ ও জাতির সমৃদ্ধি ও শান্তি কামনা করে বিশেষ দোয়া করা হয়।


অনুষ্ঠানে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি জনাব মোঃ আব্দুল হামিদের বাণী পাঠ করেন বাংলাদেশ হাইকমিশনের ডিফেন্স এডভাইজার কমোডর মুসতাক আহমেদ, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এমপি মহোদয়ের বাণী পাঠ করেন  ডেপুটি হাইকমিশনার ও দূতালয় প্রধান মিস ওয়াহিদা আহমেদ।


 


মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী ড এ কে আবদুল মোমেন এমপি মহোদয়ের বাণি পাঠ করেন কাউন্সেলর (শ্রম) জনাব মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম।  মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী জনাব মোঃ শাহরিয়ার আলম এমপি মহোদয়ের বাণী পাঠ করেন জনাব মোঃ মশিউর রহমান তালুকদার, কাউন্সেলর (পাসপোর্ট এন্ড ভিসা)  সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জনাব কে এম খালিদ এমপি’র বাণি পাঠ করেন জনাব মোঃ রাজিবুল আহসান, কাউন্সিলর কমার্শিয়াল ।


অনুষ্ঠানে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের উপর আলোচনা করে হাইকমিশনার বলেন, মাতৃভাষা প্রতিষ্ঠার জন্য সংগ্রাম ও জীবন দেওয়ার ইতিহাস একমাত্র গর্বিত বাঙ্গালি জাতির আছে। এই ভাষা সংগ্রামের অর্জনেই লুকিয়ে ছিল বাংলাদেশের স্বাধীনতা যা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে বাঙ্গালি অর্জন করে তিনি আরো বলেন আমরা ভাগ্যবান যে মুজিববর্ষ পেয়েছি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বাংলা ভাষাকে সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দিতে নিরলসভাবে কাজ করছে


 । বর্তমানে তাঁরই নেতৃত্বে  বাংলাদেশের উন্নয়নের অগ্রগতি আজ দৃশ্যমান। তিনি দেশের উন্নয়নে প্রবাসীদের অবদানের কথা কৃতজ্ঞতার সাথে স্মরণ করেন।


 হাইকমিশনের সকল কর্মকর্তা  ছাড়া আরো উপস্থিত ছিলেন মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ  অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী,  সংবাদকর্মী ও প্রবাসীরা হাই কমিশনের প্রাঙ্গণে নির্মিত অস্থায়ী শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের স্মরণ করেন।

আজকের পাঠকসংখ্যা
৩৯১৩৯৩
পুরোন সংখ্যা