চাঁদপুর। মঙ্গলবার ১৪ মার্চ ২০১৭। ৩০ ফাল্গুন ১৪২৩। ১৪ জমাদিউস সানি ১৪৩৮

বিজ্ঞাপন দিন

বিজ্ঞাপন দিন

সর্বশেষ খবর :

  • আজ ভোরে অ্যাডঃ এ.বি.এম. মোনাওয়ার উল্লা মৃত্যুবরন করেছেন (ইন্নালিল্লাহে.....রাজেউন)। তাঁর মৃত্যুতে চাঁদপুর রোটারী ক্লাব ও চাঁদপুর ডায়াবেটিক সমিতির পক্ষ থেকে গভীর শোক জানিয়েছেন
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

২৭-সূরা নাম্ল 


৯৩ আয়াত, ৭ রুকু, ‘মক্কী’


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


৪৭। উহারা বলিল, ‘তোমাকে ও তোমার সঙ্গে যাহারা আছে তাহাদিগকে আমরা অমংগলের কারণ মনে করি।’ সালিহ বলিল, ‘তোমাদের শুভাশুভ আল্লাহর ইখতিয়ারে, বস্তুত তোমরা এমন এক সম্প্রদায় যাহাদিগকে পরীক্ষা করা হইতেছে।’।


দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন


 


প্রীতি দিয়ে পাওয়া যায় আপন লোককে, পরকে পাওয়া যায় ভয় জাগিয়ে রেখে।  


                     -রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর/মুক্তধারা।

যাহারা গচ্চিত ধন রক্ষা করে, কথামতো কার্য করে এবং প্রতিশ্রুতি পালন করে, তারাই মুসলমান। 


কবে হবে ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল?
ক্রীড়া প্রতিবেদক
১৪ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+

কবে হবে ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল? এ প্রশ্নই এখন ফাইনালে উঠা খেলোয়াড় ও খেলা দেখা দর্শকদের। গত ২ বছর ধরেই চট্টগ্রাম বিভাগের মধ্যে চাঁদপুর জেলায় অনুষ্ঠিত হচ্ছে ক্রীড়া মাস। যথাসময়ে প্রথম ক্রীড়া মাসের খেলা শুরু হলেও খেলার পুরস্কার বিতরণ হয়েছে অনেক পরে। আর দ্বিতীয় ক্রীড়া মাসের উদ্বোধন হয়েছে নভেম্বর-২০১৬ তে। কিন্তু এই ক্রীড়া মাসের খেলাগুলোর ফাইনাল কিংবা পুরস্কার বিতরণ কবে হবে কোনো দলই ঠিকমতো বলতে পারছে না। জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে ২য় ক্রীড়া মাসের উদ্বোধন হয় গত ১৫ নভেম্বর। উদ্বোধনের মধ্য দিয়েই ক্রীড়া মাস শুরু হয়। ক্রীড়া মাসের উদ্বোধন করেছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক, সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও চাঁদপুর সদর আসনের সাংসদ ডাঃ দীপু মনি । কিন্তু ৪ মাস পেরিয়ে গেলেও ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল কবে হচ্ছে তা জানা যায়নি। তবে গত ১২ মার্চ রোববার অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও সেই ফাইনাল খেলাটিও আয়োজকরা আয়োজন করতে পারেনি। ক্রীড়ামোদী দর্শকরা অপেক্ষায় রয়েছে নাজিরপাড়া ও ব্রাদার্স ইউনিয়নের মনোমুগ্ধকর ফাইনাল খেলাটি দেখার জন্য ।

জেলা ক্রীড়া সংস্থার ১০টি ক্লাব নিয়ে শুরু হয়েছিলো ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট । জেলা ও উপজেলার কয়েক শতাধিক ফুটবলারের মাঝ থেকে ১০টি ক্লাবে সুযোগ পেয়েছিলেন ১৯০ ফুটবলার। এবারের ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশ নিয়েছিলো জেলা ক্রীড়া সংস্থার অন্তর্ভুক্ত ১০টি ক্লাব। ক্লাবগুলো হচ্ছে : মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব, আবাহনী ক্রীড়া চক্র, ভাই ভাই স্পোর্টিং ক্লাব, নাজির পাড়া ক্রীড়া চক্র, বিষ্ণুদী ক্লাব, গুয়াখোলা ক্রীড়া চক্র, পূর্ব শ্রীরামদী ক্লাব, নতুন বাজার ক্রীড়া চক্র, ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাব ও চাঁদপুর ক্রিকেট একাডেমী।

উল্লেখ্য, অক্টোবর মাসের শেষের দিকে ফুটবলার বাছাই কার্যক্রমে চাঁদপুর সদরসহ ৮ উপজেলা থেকে প্রায় ৩ শতাধিক ফুটবলার অংশ নিয়েছিলো । বাছাই কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা বাবু, ফুটবল উপ-কমিটির সম্পাদক আলহাজ্ব শাহির হোসেন পাটওয়ারী, যাচাই-বাছাই কর্মকর্তা মনোয়ার হোসেন চৌধুরী, স্বপন কুমার সাহা, শাজাহান তালুকদার সাহা ও আবুল কালাম আজাদ। যাচাই-বাছাইতে মোট ১৯০ জন ফুটবলারকে বাছাই করে লটারীর মাধ্যমে বিভিন্ন দলে খেলোয়াড়দের দেয়া হয়।

ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠা দলগুলো হলো : নাজিরপাড়া ক্রীড়া চক্র ও ব্রাদার্স ইউনিয়ন। দলগুলোর খেলোয়াড়রা ছিলেন নাজিরপাড়া ক্রীড়া চক্র : গোলকিপার : মোদাচ্ছের, তৈয়ব সিদ্দিকী ও সাগর হোসেন। ডিফেন্স : বকুল, রাজা, মেজবাহ্ হাবিব, রনি জমাদার, আবু সায়েম ও ইয়াসিন পারভেজ। মধ্যমাঠ : শুভ ঘোষ, নাহিদুর রহমান, আবুল কালাম, মাসুদ রানা, এলাহি তৌহিদ ও মুসফিকুর রহমান। ফারায়ার্ড : সুমন হোসেন, ফয়সাল হোসেন, রবিউল হাসান ও তারেকুল ইসলাম।

ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাব : গোলকিপার : নাজমুল হাসান, রেজওয়ান হোসেন আরমান ও মহিউদ্দিন মজুমদার। ডিফেন্স : লুইস, আব্বাস, এমরান হোসেন রাজু, রিপন, নাজমুল হোসেন ও শাকিল হাওলাদার। মধ্যমাঠ : সোহেল রানা, সুফিয়ান, মোঃ আরিফ, রাসেল, রোকন খান ও মোঃ শামিম। ফরোয়ার্ড : জুয়েল, সাজ্জাদ, কামরুল হাসান ও মিশকাত হোসেন।

আজকের পাঠকসংখ্যা
২৩৬২৪
পুরোন সংখ্যা