চাঁদপুর, মঙ্গলবার ২ জুলাই ২০১৯, ১৮ আষাঢ় ১৪২৬, ২৮ শাওয়াল ১৪৪০
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৫-সূরা রাহ্মান


৭৮ আয়াত, ৩ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


৬৬। উভয় উদ্যানে আছে উচ্ছলিত দুই প্রস্রবণ।


৬৭। সুতরাং তোমরা উভয়ে তোমাদের প্রতিপালকের কোন্ অনুগ্রহ অস্বীকার করিবে?


৬৮। সেথায় রহিয়াছে ফলমূল -খর্জুর ও আনার।


 


 


 


assets/data_files/web

বাণিজ্যই হলো বিভিন্ন জাতির সাম্য সংস্থাপক। -গ্লাডস্টোন।


 


 


যখন কোনো দলের ইমামতি কর, তখন তাদের নামাজকে সহজ কর।


 


 


 


ফটো গ্যালারি
বিশ্বকাপ আমাদের হোক
পীযূষ কান্তি বড়ুয়া
০২ জুলাই, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


দশটি দলের উইলো যোদ্ধাদের শৌর্যে-বীর্যে মাঠের সবুজ ঘাস আরো সতেজ হয়ে উঠেছে। আকাশে মেঘের ঘনঘটায় দ্বাদশ ক্রিকেট বিশ্বকাপ বৃষ্টিকাপে পরিণত হতে হতে এখনও হয়নি। যদিও বৃষ্টির মূঢ়তায় ক্রিকেট বিশ্বের বৃহত্তম আনন্দযজ্ঞটি আর আনন্দের নেই। যে মাত্রায় একটি নান্দনিক ও উপভোগ্য বিশ্বকাপের জন্যে ক্রীড়ামোদীরা অপেক্ষা করেছিলো ঠিক সে মাত্রায় জমে উঠেনি এই আয়োজন। এ কেবল বৃষ্টির দৌরাত্ম্যে তা নয়। অধিকাংশ খেলাই মাঠে গড়ানোর পর হয়ে যাচ্ছে একপেশে। হাতে গোণা দু-একটি ম্যাচ জমে উঠতে চেয়েছিল। নিউজিল্যান্ড বনাম বাংলাদেশের ম্যাচ এবং পাকিস্তান বনাম ইংল্যান্ডের ম্যাচ দুটোই কিছুটা স্নায়ুকে চাপে রেখেছিল মস্তিষ্ককে। প্রতিযোগিতায় হারতেই যেন এসেছে আফগানিস্তান। আটটি ম্যাচ খেলে তারা এখনও পর্যন্ত কোনো পয়েন্ট পায়নি। আইপিএল খেলে বিখ্যাত হওয়া রশিদ খান এবার তার লেগস্পিন দিয়ে খুব একটা সুবিধা করতে পারেনি। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বেধড়ক মার খেয়ে একশ দশ রান দিয়ে পার পেয়েছে। বাংলাদেশের বিপক্ষেও তেমন সুবিধা করতে পারেনি রশিদ খান। পাকিস্তানের বিরদ্ধে আফগানিস্তানের খেলা দেখে মনে সন্দেহ জাগে, তারা আদৌ ম্যাচটাকে ড্রেসিংরুমের টেবিলেই খেলে এসেছে কিনা। পয়েন্ট তালিকায় আফগানিস্তান যেমন সর্বনিম্ন অবস্থানে, তেমনি বর্তমান চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া আছে শীর্ষ স্থানে। যদিও তাদের এক খেলায় হারতে হয়েছে। ভারত ৭ খেলার ছয় খেলায় জয় পেয়েছে। পয়েন্ট তালিকা পর্যালোচনা করলে দেখা যায় অস্ট্রেলিয়া, ভারত আর নিউজিল্যান্ডের সেমি-ফাইনাল খেলা নিশ্চিত। বাকি একটি স্থানের জন্যে লড়তে হবে আপাত দৃষ্টিতে তিনটি দলকে। বাংলাদেশ, স্বাগতিক ইংল্যান্ড এবং বিশৃঙ্খল ক্রিকেট মেধার দেশ পাকিস্তান। বাংলাদেশের আরো দুটো খেলা বাকি, যার একটি ভারত এবং একটি পাকিস্তানের বিরুদ্ধে। ইংল্যান্ডের একটি খেলা বাকি নিউজিল্যান্ডের সাথে। শ্রীলঙ্কার দুটো খেলা বাকি, যার একটি ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও একটি ভারতের সাথে। অবস্থাদৃষ্টে পাকিস্তানের চতুর্থ দল হিসেবে যাওয়ার সুযোগ বেশি যদি শেষ খেলায় বাংলাদেশকে হারাতে পারে। বাংলাদেশের সুযোগ ক্ষীণ, কেননা পর পর দুটো দল পাকিস্তান ও ভারতকে হারাতে হবে। আমরা আশাবাদী হলেও বাস্তবতার নিরিখে এটি কঠিন যদিও অসম্ভব নয়। শ্রীলঙ্কা ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ভারতকে হারালে তারাও সেমি-ফাইনালে যেতে পারে। এই একটা জায়গায় এসে দ্বাদশ বিশ্বকাপ ক্রিকেটকে কিছুটা জটিল গণিতের দ্বারস্থ হতে হবে।



ক্রিকেটে দলীয় নৈপুণ্যের চেয়ে ব্যক্তিগত নৈপুণ্যের ভাস্বরতা ফুটে উঠেছে অধিক। এ পর্যন্ত ঊনিশটি সেঞ্চুরি করেছে ব্যাটসম্যানরা। এই বিশ্বকাপে প্রথম সেঞ্চুরি করেছেন ইংল্যান্ডের জো রুট। দ্বিতীয় সেঞ্চুরি করেছে একই দলের জস বাটলার। বাংলাদেশের সম্পদ, বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান করেছেন এ পর্যন্ত দুটো সেঞ্চুরি। দুটো করে সেঞ্চুরি করেছেন আরো অ্যারন ফিঞ্চ, ডেভিড ওয়ার্নার, কেন উইলিয়ামসন, রোহিত শর্মা এবং জো রুট। বাংলাদেশের কীপার কাম ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম করেছেন একটা সেঞ্চুরি। এ পর্যন্ত সাকিবের এই বিশ্বকাপে মোট রান চারশ ছিয়াত্তর। তার উপরে আছে পাঁচশ রান নিয়ে ডভিড ওয়ার্নার এবং চারশ ছিয়ানব্বই রান নিয়ে অ্যারন ফিঞ্চ। তবে ব্যক্তিগত নৈপুণ্যে সবাইকে ছাড়িয়ে গেছেন সাকিব আল হাসান। তৃতীয় সর্বোচ্চ রান, দুটো সেঞ্চুরি, তিনটে হাফ সেঞ্চুরি ও একটি পাঁচ উইকেটের মাইলফলকসহ দশ উইকেট এবং দুবার ম্যান অফ দ্য ম্যাচ হয়ে তিনি ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্টের দৌড়ে এগিয়ে আছেন। বেশ কয়েকটা রেকর্ড ছুঁয়েছেন সাকিব আল হাসান। বিশ্বকাপে এক হাজার রান ও তিরিশের উপরে উইকেট নিয়ে তিনি বিশ্বকাপে ঊনিশতম ক্রমিকে নাম লিখিয়েছেন। আফগানিস্তানের বিপক্ষে একান্ন রান বা ফিফটি পার করে এবং পাঁচটি উইকেট নিয়ে যুবরাজ সিং-এর পরে তিনিই দ্বিতীয় জন হিসেবে ইতিহাসে নাম লিখিয়েছেন।



বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের তুলনামূলক ব্যক্তিগত দক্ষতা বিবেচনা করলে আমাদের সর্বদিক দিয়ে হতাশ করেছেন ড্যাশিং ওপেনার তামিম। নিজে কিছু তেমন করতে না পারলেও সৌম্য সরকারকে রান আউট করিয়ে দলকে সেদিন দিয়েছেন ডুবিয়ে। সৌম্য সরকারও ভালো সূচনার পর আর নিজেকে এগিয়ে নিতে পারেননি। দলনেতা মাশরাফির এই একাদশে থাকাটা প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে গেছে বিশেষত দলের সবচেয়ে দ্রুত গতির বোলার রুবেল হোসেনের সেরা একাদশের বাইরে থাকার জন্যে। ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টস জিতে ব্যাট না নেওয়ার সিদ্ধান্ত সবাইকে হতাশ ও ব্যথিত করেছে। একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হয়েছে নিউজিল্যান্ডের ক্ষেত্রেও। অথচ নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচটা আমাদের জেতা উচিত ছিলো। এই নিউজিল্যান্ডকেই আমরা বাংলা ওয়াশ করেছি আচ্ছামতো। বাংলাদেশের বোলাররাই এই টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের দুর্বলতা।



তারা বড় ম্যাচে কার্যকর হয়ে উঠতে পারেনি এবং তাদের ওপর রাখা অধিনায়কের আস্থার প্রতিদান দিতে পারেনি। লিটনকে বসিয়ে রেখে যে ভুল টিম ম্যানেজমেন্ট করেছিল দেরিতে হলেও তা শোধরানো গেছে, যদিও জালিম আলিমদারের কারণে নিজের প্রথম ম্যাচে দুর্দান্ত খেলা লিটন ভুল সিদ্ধান্তের শিকার হয়ে পরবর্তী ম্যাচে দ্রুত বাইশ রান করে প্যাভিলিয়নে ফেরৎ আসতে বাধ্য হয়। বাংলাদেশ বিশ্বকাপে বার বারই বাজে আম্পায়ারিং-এর শিকার হয়।



বিশ্বকাপের ধারাভাষ্য দিতে গিয়ে ভাষ্যকাররা কোনো ভাবেই নিরপেক্ষ থাকতে পারেন না। তারা খেলা বাদ দিয়ে বরং নিজেদের কথাতেই সময় ব্যয় করেন বেশি বলে মনে হয়েছে। এই টুর্নামেন্টে অস্ট্রেলিয়ার ফিল্ডিং উল্লেখ করার মতো। ছক্কা হওয়া বলকে যৌথ প্রচেষ্টায় ক্যাচ লুফে তারা হতবাক করে দিয়েছে ছয়ের স্বপ্নে বিভোর ব্যাটসম্যানকে।



এই বিশ্বকাপে সর্বাধিক উইকেট নিয়েছেন এ পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার মিচেল স্টার্ক। তিনি ঊনিশটি উইকেট নিয়েছেন। দ্বিতীয় অবস্থানে আছেন ষোলটি উইকেট নিয়ে ইংল্যান্ডের জোফরা আর্চার। আর তৃতীয় অবস্থানে আছেন চৌদ্দটি উইকেট নিয়ে নিউজিল্যান্ডের বোলার লকি ফার্গুসন।



এই বিশ্বকাপে যারা নজর কেড়েছেন তারা হলেন অ্যারন ফিঞ্চ, ডেভিড ওয়ার্নার, জো রুট, জস বাটলার, রোহিত শর্মা, বিরাট কোহলি, কেন উইলিয়ামস প্রমুখ। বৃষ্টির ঝামেলা বাদ দিলে দ্বাদশ বিশ্বকাপ হতো জমজমাট এক আসর। খেলা এখনো অনেক বাকি। কী নাটক বিশ্বকাপ লুকিয়ে রেখেছে তার গর্ভে তা ক্রমশ প্রকাশ্য হবে ধীরে ধীরে। এই বিশ্বকাপ আমাদের মন না ভাঙ্গুক, এই বিশ্বকাপ আমাদেরই হোক, এই হোক আজকের প্রার্থনা।



 



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৬৮৪৯৬
পুরোন সংখ্যা