সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১  |   ৩৫ °সে
আজকের পত্রিকা জাতীয়আন্তর্জাতিকরাজনীতিখেলাধুলাবিনোদনঅর্থনীতি শিক্ষা স্বাস্থ্য সারাদেশ ফিচার সম্পাদকীয়
ব্রেকিং নিউজ
  •   এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষার সময়সূচি প্রকাশ

প্রকাশ : ২৭ জুলাই ২০২১, ২০:৫৯

সর্বাত্মক লকডাউন বাস্তবায়নে সড়কে জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের তৎপরতা

পঞ্চম দিনে ২২১ জনকে জরিমানা

মিজানুর রহমান

করোনা সংক্রমণ রোধে সরকার ঘোষিত ফের ১৪ দিনের কঠোর বিধিনিষেধের পঞ্চম দিন অতিবাহিত হয়েছে। অন্যান্য দিনের মত ২৭ জুলাই মঙ্গলবার চাঁদপুরে সর্বাত্মক লকডাউন বাস্তবায়নে মাঠে তৎপর ছিল প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। খোদ জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ এবং পুলিশ সুপার মিলন মাহমুদ (বিপিএম) বার ঘরে বসে নেই।

গতকালও স্বয়ং জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার শহরের বিভিন্ন সড়কে অবস্থান নিয়ে চাঁদপুর জেলার লকডাউন পরিস্থিতি তদারকি করেছেন এবং রাস্তায় বের হওয়া যানবাহনের চালক এবং মানুষের কারণ জিজ্ঞেস করেন।

এ সময় জেলা প্রশাসক বলেন, করোনাকে জনগণ ভয় করতে হবে। এক্ষেত্রে জনগণের সচেতন হওয়া খুবই প্রয়োজন। কার্যক্রম লকডাউন বাস্তবায়নে প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে।

পুলিশ সুপার বলেন, করোনার এই ভয়াবহ পরিস্থিতি মোকাবেলায় চাঁদপুরের সকল নাগরিকগণকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা, অতি জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে যাওয়া থেকে বিরত থাকা এবং সরকার নির্দেশিত বিধিনিষেধসমূহ যথাযথভাবে অনুসরণ করার আহ্বান জানান তিনি।

মঙ্গলবার সকাল থেকে জেলা প্রশাসন, পুলিশ, সেনাবাহিনী, বিজিবি এবং জেলা প্রশাসনের স্বেচ্ছাসবক সদস্যদের জেলা শহর, মহাসড়ক ও গুরুত্বপূর্ণ স্থানে টহল দিতে দেখা গেছে।

জেলা প্রশাসক এবং পুলিশ সুপারের উপস্থিতিতে এদিন শহরের পুরাণবাজার, পালবাজার, শপথ চত্বর (কালীবাড়ি), ছায়াবানী মোড়, বাসস্ট্যান্ড, ওয়্যারলেছ, বাবুরহাট, বিপণীবাগে প্রশাসন কঠোরভাবে লকডাউন কার্যক্রম পরিচালিত করেছে। তারপরও শহরের বিভিন্ন রাস্তায় নানা অজুহাত দেখিয়ে মানুষ ছুটছে যেখানে-সেখানে।

এদিন, চাঁদপুরের জেলা উপজেলা প্রশাসন সর্বাত্মক লকডাউন কার্যকর করতে ১৭টি মোবাইল কোর্টের অভিযান পরিচালিত হয়েছে।

এ সময় ২১৩টি মামলায় ২২১ জনকে অর্থদণ্ড দেয়া হয়েছে। তাদের কাছ থেকে আদায় করা হয় ১ লক্ষ ৬১ হাজার ৬৪০ টাকা। জেলা প্রশাসনের কন্ট্রোল রুম থেকে এ তথ্য জানা যায়।

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়