চাঁদপুর, শনিবার, ২ জুলাই ২০২২, ১৮ আষাঢ় ১৪২৯, ২ জিলহজ ১৪৪৩  |   ৩০ °সে
আজকের পত্রিকা জাতীয়আন্তর্জাতিকরাজনীতিখেলাধুলাবিনোদনঅর্থনীতি শিক্ষা স্বাস্থ্য সারাদেশ ফিচার সম্পাদকীয়
ব্রেকিং নিউজ
  •   চাঁদপুরের সাবেক এসপি কৃষ্ণ পদ রায় সিএমপির কমিশনার
  •   চাঁদপুরের রোটার‌্যাক্ট ক্লাবগুলোর জিরো আওয়ার সেলিব্রেশন প্রোগ্রাম
  •   চাঁদপুর পৌরসভার অর্থায়নে একটা ব্লাড ব্যাংক করবো
  •   বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে শিক্ষাব্যবস্থা ঢেলে সাজানো হচ্ছে
  •   রোটারিয়ানগণ সেবামূলক যে মহৎ কার্যক্রম করছেন তা সত্যিই অনুকরণীয়

প্রকাশ : ০৯ জুন ২০২২, ১০:৩৫

ডিপজলের ছেলের বিয়ে চাঁদপুরের কাজী বংশে

মিজানুর রহমান
ডিপজলের ছেলের বিয়ে চাঁদপুরের কাজী বংশে

ঢাকাই চলচ্চিত্রের দাপুটে অভিনেতা মনোয়ার হোসেন ডিপজল। চলচ্চিত্রের পর্দায় এ অভিনেতা নেতিবাচক ও ইতিবাচক দুই চরিত্রেই অভিনয় করেছেন। তবে খল-নায়ক হিসেবে অধিক পরিচিত তিনি। যদিও বাস্তব জীবনে হিরোর ভূমিকায় দেখা গেছে ডিপজলকে। চলচ্চিত্র পাড়ায় ‘দানবীর’ হিসেবে খ্যাতি রয়েছে তার। ডিপজল এবার তার বড় ছেলে সাদ্দাম সৌমিক অমিকে বিয়ে দিয়েছেন কোটি টাকা কাবিনে।

যার সাথে ছেলের বিয়ে দিয়েছেন সে চাঁদপুরের মেয়ে।ডিপজলের পুত্রবধূর নাম কাজী তাসফিয়া। প্রিন্স বাজার সুপার মলের স্বত্বাধিকারী ও প্রিন্স গ্রুপের ডিরেক্টর কাজী মানিকের মেয়ে তাসফিয়া। কাজী মানিক হলেন চাঁদপুর সদর উপজেলা তরপুরচন্ডী কাজীবাড়ির সন্তান। যারা সেখানে তাজমহল এর আদলে দৃষ্টিনন্দন মসজিদ মাদ্রাসা এবং লজ্জাতুন্নেছা প্রাইভেট হাসপাতাল প্রতিষ্ঠা করেন। কাজি তাসফিয়া আরেকটি পরিচয় হলো সে চাঁদপুর সদর উপজেলা ১০ নং লক্ষীপুর মডেল ইউনিয়নের (সাবেক সাখুয়া) সাবেক চেয়ারম্যান ও প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল মান্নান খান মনা খার মেয়ের ঘরের নাতিনী। মনা খাঁর একমাত্র মেয়ে স্বপ্না বেগমের কন্যা কাজি তাসফিয়া। এই বিয়ের কাবিন হওয়ার পর ডিপজল পরিবারের সবাইকে নিয়ে একবার চাঁদপুর বেড়াতে এসেছিলেন।

সেই বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা রাজকীয় আয়োজনে ৮ জুন, ২০২২ বুধবার সন্ধ্যায় রাজধানীর মিরপুর প্রিন্স বাজার কমিউনিটি সেন্টারে সম্পন্ন হয়। বিয়ের অনুষ্ঠানে দুই পরিবারের সদস্যরা রাজকীয় পোশাকে হাজির হন৷ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ নেতা সুজিত রায় নন্দী, চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল সহ অন্যান্য রাজনীতিক দলের নেতৃবৃন্দ, বিশিষ্ট জন এবং চলচ্চিত্রের অনেক তারকারাও। ডিপজলের ছেলের বিয়ে সবাইকে নিয়ে অনুষ্ঠান হবে না তাই কি হয়? এবার জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে প্রায় ১০ হাজার অতিথি নিয়ে অনুষ্ঠান করে পুত্রবধূকে ঘরে তুলবেন দাপুটে এই অভিনেতা।

গত ৫ জুন সাভারে লাজ পল্লীতে পরিবার ও ঘনিষ্ঠজনদের নিয়ে সৌমিক-তাসফিয়ার গায়ে হলুদ সম্পন্ন হয়েছে। ১০ জুন শুক্রবার বৌভাত। অনুষ্ঠানে প্রায় ১০ হাজার অতিথি থাকবেন। এদিন বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টারে বিবাহোত্তর সংবর্ধনার আয়োজন করা হয়েছে। ডিপজল বলেন, ‘করোনার কারণে আত্মীয়-স্বজন, বন্ধুবান্ধব, আমার চলচ্চিত্রের সহকর্মী, রাজনীতিক ও ব্যবসায়ীক বন্ধুদের বলতে পারিনি। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়েছে। তাই এবার সবাইকে সঙ্গে নিয়ে অনুষ্ঠান করছি। সবাই আমার ছেলে ও বৌমার জন্য দোয়া করবেন।’ ডিপজলের তিন ছেলে ও এক মেয়ে। এর আগে ২০১৮ সালের জুনে মেয়ে ওলিজা মনোয়ারের বিয়ে দিয়েছেন এই অভিনেতা। এবার ঘরে আসছে বড় পুত্রবধূ।

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়