শনিবার, ২৯ জানুয়ারি ২০২২, ১৪ মাঘ ১৪২৮  |   ২১ °সে
আজকের পত্রিকা জাতীয়আন্তর্জাতিকরাজনীতিখেলাধুলাবিনোদনঅর্থনীতি শিক্ষা স্বাস্থ্য সারাদেশ ফিচার সম্পাদকীয়
ব্রেকিং নিউজ
  •   বালুবাহী ট্রাক চাপায় গাড়ির হেলপার নিহত
  •   চাঁদপুর শহরে যুবকের আত্মহত্যা
  •   ফরিদগঞ্জে ৪ কেজি গাঁজাসহ দুই যুবক আটক
  •   করোনায় মৃত্যু ২০, শনাক্ত ১৫৪৪০ জন
  •   ফরিদগঞ্জে আগুনে পুড়ে বৃদ্ধার মৃত্যু

প্রকাশ : ২৭ ডিসেম্বর ২০২১, ০১:১১

একজন বিনয়ী মেয়র অ্যাডঃ মোঃ জিল্লুর রহমান জুয়েল

অনলাইন ডেস্ক
একজন বিনয়ী মেয়র অ্যাডঃ মোঃ জিল্লুর রহমান জুয়েল

জন্ম সূত্রে পৌরসভার স্হায়ী বাসিন্দা হিসাবে আমার দেখা একজন সেরা বিনয়ী ও মানবিক মেয়র জিল্লুর রহমান।

ষাটের দশকের শেষের দিকে মেয়র ও আমাদের পরিবার গুয়াখোলার ঐতিহ্যবাহী কাদির বেপারী বাড়িতে একসাথে বেড়ে উঠেছি।মেয়রের বাবা জনাব লুৎফর রহমান সাহেব অত্যন্ত ভালো মানুষ ছিলেন। মেয়রের বড় সেলিম ভাই,মনির,শাহিনসহ আমরা খেলাধুলা ও হৈহুল্লোর করে শৈশবের একটা স্মৃতি জাগরিত সময় কাটিয়েছি।

মেয়রের তখন জন্ম হয় নাই। এ বাড়িতে মেয়রের আয়ুস্কাল মাত্র তিন মাস। জন্মের তিন মাস পর মেয়র পরিবার অন্যত্র চলে যায়।পরবর্তীতে মেয়র তাঁর মমতাময়ী মায়ের কাছ থেকে তাঁর জন্মস্থান আমাদের বাড়ি ও আমাদের সম্পর্কে অনেক কথা জেনেছে।

পৌরসভার নির্বাচনী তফসিল ঘোষনার পর প্রথম নির্বাচনী প্রচার কার্যক্রম শুরু হয় আমাদের বাড়ি থেকে। পৌরসভার প্রথম নির্বাচনী সভায় মেয়র বলেন, "আমার মায়ের নির্দেশে এই বাড়ি থেকে নির্বাচনী প্রচার অভিযান শুরু করলাম। মা বলেছে, এই বাড়িতে তুমি জন্মেছো, তাই তোমার জন্ম স্থান (কাদির বেপারী বাড়ি) থেকেই নির্বাচনী কার্যক্রম শুরু কর।মায়ের আদেশ পালন করতে এখানে এসেছি।" জন্মস্থান তথা আমাদের বাড়ির প্রতি যে সম্মান দেখিয়েছি তা একজন বিনয়ী ও ভদ্র মানুষের পক্ষেই সম্ভব।

এ বাড়ির কারো সাথে দেখা হলে আপন ভাইয়ের মত বুকে জড়িয়ে ধরে। সেদিন আমার স্কুলে education for huminity এর একটি প্রোগ্রামে আমাকে দেখে শাহজাহান ভাই বলে এমনিভাবে জড়িয়ে ধরেছে।

এমন বিনয়ী ও মানবিক মেয়েরকে আমি স্যালুট জানাই। লেখাটি উত্তর শ্রীরামদী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শাহজাহান সিদ্দিকীর ফেসবুক পোস্ট থেকে নেয়া।

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়