চাঁদপুর, শনিবার, ১ অক্টোবর ২০২২, ১৬ আশ্বিন ১৪২৯, ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪  |   ৩৩ °সে
আজকের পত্রিকা জাতীয়আন্তর্জাতিকরাজনীতিখেলাধুলাবিনোদনঅর্থনীতি শিক্ষা স্বাস্থ্য সারাদেশ ফিচার সম্পাদকীয়
ব্রেকিং নিউজ
  •   নদীর বাতাসও যেন ঘুরে চলে যায় অন্য কোথাও
  •   শেখ ফরিদ আহমেদ মানিকের সুস্থতা কামনায় বিভিন্ন মসজিদে দোয়া
  •   একদিনের সফরে আজ চাঁদপুর আসছেন শিক্ষামন্ত্রী
  •   চাঁদপুরের সাবেক অতিরিক্ত পুলিশ সুপারই এখন আইজিপি
  •   হাজীগঞ্জে মৃত বোনের চাঞ্চল্যকর ডিভোর্স জালিয়াতি

প্রকাশ : ১৪ আগস্ট ২০২২, ০০:০০

২ লাখ টাকার বালু পরিবহনে কোটি টাকার কার্গো ডাকাতিয়ায় ডোবার উপক্রম!

২ লাখ টাকার বালু পরিবহনে কোটি টাকার কার্গো ডাকাতিয়ায় ডোবার উপক্রম!
স্টাফ রিপোর্টার ॥

আনুমানিক ২ লাখ টাকার বালু পরিবহন করতে গিয়ে সমন্বয়হীনতার কারণে প্রায় কোটি টাকা মূল্যের কার্গো জাহাজ চাঁদপুরের ডাকাতিয়া নদীতে ডুবে যাওয়ার উপক্রম হয়েছে। বর্তমানে ওই কার্গো জাহাজটি শহরের পুরাণবাজার রঘুনাথপুরে সাবেক এআরবি ব্রিকফ্রিল্ড ঘাটের পাশে নোঙ্গর করে রাখা রয়েছে।

ঘটনা প্রসঙ্গে খোঁজ-খবর নিয়ে জানা যায়, এমভি পিএম লিটন কার্গো জাহাজ ছাতক হতে খুলনা কাস্টমস্ ঘাটের উদ্দেশ্যে বালু লোড করাবস্থায় সেখানে জাহাজে লোড করতে আসা ছোট বালুর ট্রলারের সাথে আকস্মিক ধাক্কা লেগে সামান্য ক্ষতি হয়। তাৎক্ষণিক জাহাজে থাকা মাস্টার জাহাজের পরিচালক তাজুল ইসলামের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করে। তখন তাজুল ইসলাম জাহাজ মাস্টারকে ক্ষতি থেকে রেহাই পেতে জাহাজে থাকা মাস্টারের সাথে আলোচনা করেছেন। তখন সোডা সিমেন্ট দিয়ে পানি ঢোকা সাময়িক বন্ধ করে লিকেজ সারানো হয়।

খোঁজ-খবর নিয়ে আরও জানা যায়, পরবর্তীতে যে পরিমাণ বালু লোড হয় ওই পরিমাণ মাল নিয়েই ৩১ জুলাই রোববার জাহাজটি খুলনার উদ্দেশ্যে রওনা হয়ে যায়। পরে ছাতক থেকে ছেড়ে জাহাজটি লিপসা চলে আসে। কিন্তু জাহাজে থাকা মাস্টার এবং ড্রাইভার বাদে এ পরিস্থিতিতে অন্য সকল স্টাফ ঝুঁকি এড়াতে পলায়ন করে। কেননা জাহাজটির লিকেজ দিয়ে চলন্ত অবস্থায় ততক্ষণে প্রচুর পরিমাণে পানি প্রবেশ করতে শুরু করে। যা দেখে স্টাফরা পালিয়ে যায়। এরপর লিপসা থেকে অন্য জাহাজের স্টাফ পাঠিয়ে সতর্কতার সাথে পুনরায় জাহাজটি ধীরে ধীরে রওনা হয়ে চাঁদপুর পর্যন্ত আসতে সক্ষম হয়। জাহাজটি চালু অবস্থায় অতিরিক্ত পানি ওঠায় জাহাজের পাম্প দিয়েও ওই পানি নিষ্কাশন সম্ভব হয়নি। এ অবস্থায় জাহাজটি খুলনার উদ্দেশ্যে না গিয়ে ৪ আগস্ট বৃহস্পতিবার ১১টায় চাঁদপুর ডাকাতিয়া নদীর রঘুনাথপুর এলাকায় নোঙ্গর করতে হয়।

এ ব্যপারে এমভি পিএম লিটন কার্গো জাহাজটির পরিচালক তাজুল ইসলাম বলেন, মালের পার্টি এবং ট্রান্সপোর্ট আলোচনা সাপেক্ষে জাহাজটি থেকে যদি মাল দ্রুত খালাস করা না হয়, তাহলে জাহাজটি যেকোনো মুহূর্তে ডুবে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

এদিকে এ ঘটনায় ট্রান্সপোর্টের পক্ষ থেকে চাঁদপুর সদর মডেল থানায় একটি অভিযোগ করার খবর পাওয়া গেছে।

এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ দায়েরকারী খুলনা তাকওয়া ট্রান্সপোর্টের প্রতিনিধি আল-আমিন বলেন, আমরা জাহাজ মালিক, ট্রান্সপোর্ট এবং মালের পার্টি সমন্বয় করে জাহাজ থেকে বালুগুলো দ্রুত খালাস করে খুলনা কীভাবে নেয়া যায় সে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

এ বিষয়ে চাঁদপুর সদর মডেল থানার এসআই মকবুল জানান, অভিযোগের প্রেক্ষিতে দুপক্ষকে ডেকে জাহাজটি দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা করায় প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে নির্দেশনা দিয়েছি।

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়